১৮, জানুয়ারী, ২০১৮, বৃহস্পতিবার | | ১ জমাদিউল আউয়াল ১৪৩৯

চাকরি দেয়ার নামে বাধ্য করা হচ্ছে দেহ ব্যবসায়

আপডেট: ০৬ জানুয়ারী ২০১৮, ০৫:৩২ পিএম

চাকরি দেয়ার নামে বাধ্য করা হচ্ছে দেহ ব্যবসায়


ছোট গলির ভিতরে কয়েকতলা দালান। ভিতরের দিকে এগুতেই দুর্গন্ধ আসছে নাকে। দোতলায় দেখা গেল প্লাইউড দিয়ে তৈরি খুপরি খুপরি ঘর। এর পাশেই একটি ঘরের ভিতরে রয়েছে সুড়ঙ্গ।


স্থানীয় বাসিন্দাদের একাংশের অভিযোগ, বড়বাজার এলাকায় এমন ছোট ঘরে চাকরি দেওয়ার নাম করে মহিলাদের দিয়ে যৌন ব্যবসা করাতেন বা়ড়ির মালিক প্রমোদ সিংহানিয়া।


গত ২৫ ডিসেম্বর এই রহস্য ফাঁস হওয়ার পর থেকেই তিনি উধাও বলে অভিযোগ পাওয়া গেছে। তাঁর বিরুদ্ধে

বড়বাজার থানায় মামলা করা হয়েছে বলে জানান স্থানীয় বাসিন্দাদের একাংশ। শুক্রবার (৫ জানুয়ারি) তারা এ তথ্য জানান।

যদিও বাড়ির ভিতরে প্রমোদ বেআইনি নির্মাণ করেছেন, তা মেনে নিয়েছে পুলিশ। স্থানীয়দের একটি সূত্রের দাবি, প্রমোদের বিরুদ্ধে থানা বেআইনি ও বিপজ্জনক নির্মাণের অভিযোগ দায়ের করে পৌরসভা কর্তৃপক্ষকে দিয়ে বাড়িটি পরীক্ষাও করানো হয়েছে।

পুলিশ সূত্রে এই অভিযোগের কথা স্বীকার করা হয়েছে। লালবাজারের একটি সূত্রে বলা হয়েছে, প্রমোদের বিরুদ্ধে এর আগেও একাধিক অভিযোগ পাওয়া গেছ। শ্লীলতাহানির ঘটনায় তাকে গ্রেফতারও করা হয়েছিল। সত্যিই চাকরি দেওয়ার নাম করে মহিলাদের যৌন ব্যবসায় নামানো হত কি না, তা খতিয়ে দেখা হচ্ছে।