পায়রা তাপ বিদ্যুৎকেন্দ্র ২০ দিন বন্ধ থাকার পর আজ রাতে পুনরায় চালু হচ্ছে। পটুয়াখালীর ‘পায়রা ১৩২০ মেগাওয়াট তাপ বিদ্যুৎকেন্দ্রের’জন্য ইন্দোনেশিয়া থেকে কয়লা নিয়ে জেটিতে ভিড়েছে কয়লাবাহী জাহাজ এমভি অ্যাথেনা।

শনিবার (২৪ জুন) সকাল থেকে দ্রুতগতিতে চলছে কয়লা খালাস কার্যক্রম। এ কয়লা দিয়ে রাতেই একটি ইউনিটের (৬৬০ মেগাওয়াট) বিদ্যুৎ উৎপাদন কার্যক্রম শুরু হতে পারে বলে জানা গেছে।

এর আগে বৃহস্পতিবার (২২ জুন) রাতে ৪১ হাজার ২০৭ টন কয়লা নিয়ে ইন্দোনেশিয়ার বালিকপানান বন্দর থেকে পায়রা বন্দরের পৌঁছায় জাহাজটি।

ডলার সংকটে কয়লা আমদানি না হওয়ায় ১ হাজার ৩২০ মেগাওয়াট ক্ষমতার দেশের সবচেয়ে বড় বিদ্যুৎকেন্দ্রটির প্রথম ইউনিট গত ২৫ মে বন্ধ হয়ে যায়। পরে ৫ জুন বন্ধ হয়ে যায় দ্বিতীয় ইউনিটও। এরপর বিদ্যুৎ উৎপাদনের জন্য দেশে কয়লা আসার পরপরই কেন্দ্রটি চালু করার উদ্যোগ নেওয়া হয়েছে।

পায়রা বিদ্যুৎকেন্দ্রের এক প্রকৌশলী জানান, আজ শনিবার (২৪ জুন) শিডিউলে কেন্দ্রটির উৎপাদনে আসার সময় নির্ধারিত রয়েছে। তিনি আরও বলেন, রাত ১২টা থেকে দেড়টার মধ্যে কেন্দ্রটি চালু হবে। সেভাবেই তারা প্রস্তুতি নিচ্ছেন।

জানা যায়, পায়রা বিদ্যুৎকেন্দ্র ২০ দিন বন্ধ থাকার সময়ে কেন্দ্রটি সংরক্ষণের কাজ করে রাখা হয়েছে। কেন্দ্রটি যাতে কয়লা থাকলে আগামী দুই বছর টানা চলতে পারে, এ জন্য এমন উদ্যোগ নেওয়া হয়েছে।

সূত্র জানায়, কয়লাবাহী দ্বিতীয় জাহাজটি আসবে ৩০ জুন। পরবর্তীতে পর্যায়ক্রমে ১৫-১৬টি জাহাজ শুধু পায়রা তাপ বিদ্যুৎকেন্দ্রের কয়লা নিয়ে পায়রা বন্দরে আসবে।

বার্তা বাজার/জে আই