শরীয়তপুরের ডামুড্যায় শিক্ষার্থীদের ঝড়ে পড়া রোধে বেসরকারি সংস্থা আশা’র শিক্ষা কর্মসূচির মাধ্যমে অভিভাবকদের নিয়ে মতবিনিময় সভা অনুষ্ঠিত হয়েছে।

বুধবার (১২ জুন) দুপুরে উপজেলার ইদ্রিস আলী উচ্চ বিদ্যালয়ের অডিটোরিয়ামে এ সভা অনুষ্ঠিত হয়।

জানা যায়, ২০১১ সাল থেকেই আশা শিক্ষা কর্মসূচির মাধ্যমে পিছিয়ে পড়া শিক্ষার্থীদের ঝড়ে পড়া রোধে কাজ করে আসছে। প্রাথমিক বিদ্যালয়ের ৫ম শ্রেণির শিক্ষার্থীদের শিক্ষার মান উন্নয়নে পাঠদান কেন্দ্র ও দেশব্যাপী মাধ্যমিক বিদ্যালয়ে ৬ষ্ঠ-৮ম শ্রেণির পিছিয়ে পড়া শিক্ষার্থীদের শিক্ষার মান উন্নয়ন ও ঝরে পড়া রোধে কর্মসূচি হাতে নিয়েছে। এতে অসহায় ও হতদরিদ্র ৯০ জন শিক্ষার্থীর ফ্রি টিউশনির সেবাসহ শিক্ষা উপকরণের জন্য সকল ব্যবস্থা করা হবে।

মতবিনিময় সভায় ফরিদপুর বিভাগের সিনিয়র এডিশনাল ডিভিশনাল ম্যানেজার রিয়াজ উদ্দিন বলেন, আশা সব সময় শিক্ষার মান উন্নয়ন নিয়ে কাজ করছে। বেসরকারি এই সংস্থাটি দীর্ঘ ১ যুগের বেশি সময় ধরে পিছিয়ে পড়া শিক্ষার্থীদের ঝড়ে পড়া রোধে বিভিন্ন উদ্যোগ গ্রহণ করেছে। শিক্ষার্থী ঝড়ে পড়া রোধে শিক্ষকদের পাশাপাশি অভিভাবকদেরও সচেতনার সাথে এগিয়ে আসতে হবে, তবেই প্রান্তিক জনগোষ্ঠীর শিক্ষার মান উন্নয়নে এই কর্মসূচি বিশেষ ভূমিকা রাখতে পারবে।

ইদ্রিস আলী উচ্চ বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক জিহাদের সভাপতিত্বে সভায় প্রধান অতিথি ছিলেন আশা ফরিদপুর বিভাগের সিনিয়র এডিশনাল ডিভিশনাল ম্যানেজার রিয়াজ উদ্দিন। এসময় আরও উপস্থিত ছিলেন, আশা শরীয়তপুর জেলার সিনিয়র ডিস্ট্রিক্ট ম্যানেজার জাহিদুল ইসলাম, আশা শিক্ষা অফিসার মনির হোসাইন, আশা সিনিয়র রিজওনাল ম্যানেজার মোর্শেদ আলম, কোদালপুর ব্রাঞ্চ ম্যানেজার, শিক্ষা সুপারভাইজারসহ বিদ্যালয়ে ম্যানেজিং কমিটির সদস্য, শিক্ষক ও অভিভাবকবৃন্দ।