সংবাদমাধ্যম যা প্রকাশ করে তার প্রতি খুব বেশি সাবধান হওয়ার পরামর্শ ব্রাজিলের তারকা ফুটবলার নেইমারের।

সোশ্যাল মিডিয়ায় এক পোস্টে নেইমার লেখেন- ‘সংবাদমাধ্যম যা প্রকাশ করে, সেটার প্রতি খুব সাবধানতা অবলম্বন করা উচিত। আমি সত্যিই সেসব মানুষকে ঘৃণা করি, যারা খবরের সততা যাচাই না করে অন্য কারও সম্পর্কে বাজে কথা বলে। সবার আগে সংবাদ ছড়িয়ে দেওয়ার প্রতিযোগিতা কারও জীবন শেষ করে দিতে পারে। সবাই মানসিকভাবে শক্ত নয়।’

সম্প্রতি ব্রাজিলিয়ান ইউটিউবার ও কৌতুক অভিনেতা হুইন্দেরসন নুনেসের সঙ্গে জেসিকা কানেদো নামে এক ছাত্রীর কথিত প্রেমের সম্পর্ক নিয়ে একটি ভুয়া স্ক্রিনশট সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমে ছড়িয়ে পড়ে। সেটিকে সত্যি ধরে নিয়ে সংবাদ প্রচার করতে থাকে ব্রাজিলের বেশ কিছু সংবাদমাধ্যম।

যদিও সম্পর্কের বিষয়টি শুরু থেকেই অস্বীকার করে এসেছেন নুনেস ও কানেদো। তারা একে–অপরকে চেনেন না, এমনকি কখনো দেখা হয়নি বলেও দাবি করেন। এরপরও ব্রাজিলের বিনোদন সাংবাদিক রাফায়েল সুসা অলিভেইরা বিষয়টি নিয়ে ইনস্টাগ্রাম ও টুইটারে আলোচনা করেন।

নিজেকে নিয়ে ভিত্তিহীন সংবাদ ও অনুষ্ঠান হয়তো সহজভাবে নিতে পারেননি জেসিকা কানেদো। ২২ বছর বয়সি এ তরুণী শনিবার আত্মহত্যা করেন। দেশটির সিভিল পুলিশও কানেদোর মৃত্যুকে সম্ভাব্য আত্মহত্যার মামলা হিসেবে নথিভুক্ত করেছে।

কানেদোর মৃত্যুর খবরে হতাশ নেইমার ইনস্টাগ্রামে লেখেন- ‘বিদ্বেষীদের উদ্দেশে বলছি। তোমরা যারা ঘৃণা ছড়াও, যারা নিজেদের সবজান্তা ও সত্যের অধিকারী মনে কর, যারা সাধু সেজে থাক, যেন কখনো ভুল করো না; তাদের অভিনন্দন। তোমরা আরেকজনকে শিকার করেছ।’