আওয়ামী লীগ সাধারণ সম্পাদক এবং সড়ক ওসেতুমন্ত্রী ওবায়দুল কাদের মন্তব্য করে বলেছেন, গাজীপুরে ট্রেনে নাশকতা নির্বাচন বিরোধী ষড়যন্ত্রের অংশ। বুধবার (১৩ ডিসেম্বর) সমসাময়িক বিষয়ে ধানমন্ডিতে আওয়ামী লীগ সভাপতির রাজনৈতিক কার্যালয়ে বক্তব্যে এসব মন্তব্য করেন তিনি। এ সময় তিনি বলেন, নির্বাচন যথাসময়ে হয়ে যাবে তখন তাদের চোখ মুখ শুকিয়ে যাবে।

এই নির্বাচনের ব্যাপক ভোটার উপস্থিতি হবে জানিয়ে ওবায়দুল কাদের বলেন, এই নির্বাচনের মাধ্যমে গণতন্ত্র আরো পারফেক্ট হবে‌, পরিপূর্ণতা অর্জন করবে প্রত্যাশা আওয়ামী লীগের।

ভোট নিয়ে নানা কথা, গুঞ্জন, শঙ্কা ও গুজব আছে। আওয়ামী লীগ সতর্ক আছে। গুজব, গুঞ্জনে আওয়ামী লীগ বিচলিত হবে না। আওয়ামী লীগ জেনে শুনেই এই চ্যালেঞ্জ নিয়েছে। সাংবিধানিক ধারাবাহিকতা রক্ষায় যথাসময়ে নির্বাচন হবে। নির্বাচনের মাধ্যমেই জবাব দিতে হবে।

বিনা প্রতিদ্বন্দ্বিতায় নির্বাচিত হওয়ার কোনো সুযোগ রাখা হয়নি। আওয়ামী লীগের পাশাপাশি স্বতন্ত্র আছে। অন্য দল‌ও আছে। প্রতিদ্বন্দ্বী রয়েছে। এ নিয়ে দুশ্চিন্তা নেই। জাতীয় পার্টি বলেছে তারা নির্বাচন করতে চায়, জোটে থাকতে চায়। শঙ্কা, আশঙ্কা আছে। ৭ তারিখ পর্যন্ত অপেক্ষা। অস্বস্তির কারণ নেই। গণতন্ত্রের এটি নতুন অভিজ্ঞতা। এ নিয়ে অস্থিরতার কোনো কারণ নেই বলে ভরসা দেন ওবায়দুল কাদের।

বার্তা বাজার/জে আই