দ্বাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনে অংশ নিতে সারা দেশে প্রার্থীদের জমা দেওয়া মনোনয়নপত্র যাচাই-বাছাই শেষ হয়েছে সোমবার (৪ ডিসেম্বর)। সারা দেশে ১৯৮৫ জন প্রার্থীকে বৈধ ঘোষণা করেছে নির্বাচন কমিশন। অবৈধ ঘোষণা করা হয়েছে ৭৩১ প্রার্থীর মনোনয়নপত্র।

রিটার্নিং কর্মকর্তার সিদ্ধান্তের বিরুদ্ধে মঙ্গলবার (৫ নভেম্বর) সকাল থেকে নির্বাচন কমিশনে শুরু হয়ে আপিল দায়ের কার্যক্রম। ৯ ডিসেম্বর পর্যন্ত আপিল আবেদন করা যাবে।

১০-১৫ ডিসেম্বর আপিল নিষ্পত্তি করবে ইসি। আপিলের মাধ্যমে অনেকে প্রার্থিতা ফিরে পেতে পারেন। ইসির সিদ্ধান্তের বিরুদ্ধেও উচ্চ আদালতে যাওয়ার সুযোগ রয়েছে প্রার্থীদের।

দ্বাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনের মনোনয়নপত্র বাছাইয়ে মোট ৭৩১ জন প্রার্থীর মনোনয়নপত্র বাতিল হয়েছে। বর্তমান সংসদ সদস্যদের কারও কারও মনোনয়নপত্র বাতিল হয়েছে।

বাছাইয়ে সারা দেশে যত প্রার্থীর মনোনয়নপত্র বাতিল হয়েছে, তাঁদের অধিকাংশই স্বতন্ত্র প্রার্থী। স্বতন্ত্র প্রার্থীর ক্ষেত্রে ১ শতাংশ ভোটারের সাক্ষর না দেয়া, ঋণ খেলাপি আয়কর রিটার্নে ক্রটির কারণে বেশিভাগ মনোনয়নপত্র বাতিল হয়েছে। আবেদন করতে আগ্রহী প্রার্থীরা বলছেন, আপিল শুনানিতে প্রার্থীতা ফেরত পাবেন তারা।

বার্তা বাজার/জে আই