দেশের ৩০০ সংসদীয় আসনে দলীয় প্রতীকে মনোনয়ন দেওয়ার ক্ষেত্রে আ.লীগ ও জাতীয় পার্টি একই সংখ্যার প্রার্থী দিয়েছে। উভয় দলই ৩০০ আসনে ৩০৪ জন করে প্রার্থী দিয়েছে। নির্বাচন কমিশনের জনসংযোগ শাখা থেকে এ তথ্য জানা গেছে।

জাতীয় পার্টি-জেপি ২০, বাংলাদেশ সাম্যবাদী দল ৬, কৃষক শ্রমিক জনতা লীগ ৩৪, বাংলাদেশ আওয়ামী লীগ ৩০৪, গণতন্ত্রী পার্টি ১২, বাংলাদেশ ন্যাশনাল আওয়ামী পার্টি (ন্যাপ) ৬, বাংলাদেশ ওয়ার্কার্স পার্টি ৩৩, বিকল্পধারা ১৪, জাতীয় পার্টি ৩০৪, জাতীয় সমাজতান্ত্রিক দল-জাসদ ৯১, জাকের পার্টি ২১৮, বাংলাদেশ তরীকত ফেডারেশন ৪৭, বাংলাদেশ খেলাফত আন্দোলন ১৪, বাংলাদেশ মুসলিম লীগ ২, ন্যাশনাল পিপলস পার্টি ১৪২, গণফোরাম ৯, গণফ্রন্ট ২৫, বাংলাদেশ জাতীয় পার্টি ১৩, ইসলামী ফ্রন্ট বাংলাদেশ ৩৯, বাংলাদেশ কল্যাণ পার্টি ১৮, ইসলামী ঐক্যজোট ৪৫, বাংলাদেশ ইসলামী ফ্রন্ট ৩৭, বাংলাদেশ মুসলিম লীগ- বিএমএল ৫, বাংলাদেশ সাংস্কৃতিক মুক্তিজোট ৭৪, বাংলাদেশ ন্যাশনালিস্ট ফ্রন্ট- বিএনএফ ৫৫, বাংলাদেশ কংগ্রেস ১১৬, তৃণমূল বিএনপি ১৫১, বাংলাদেশ জাতীয়তাবাদী আন্দোলন ৪৯, বাংলাদেশ সুপ্রিম পার্টি ৮২ জন প্রার্থীকে মনোনয়ন দিয়েছে। এছাড়া, স্বতন্ত্র থেকে ৭৪৭ জন মনোনয়ন দাখিল করেছেন।

সূত্রমতে, ৩০ নভেম্বর দ্বাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচন উপলক্ষে রাজনৈতিক দল ও স্বতন্ত্র প্রার্থী মিলিয়ে ৩০০টি আসনে মোট ২ হাজার ৭১৩টি মনোনয়নপত্র জমা পড়েছে। এর মধ্যে ৩২টি রাজনৈতিক দলের প্রার্থী রয়েছেন ১ হাজার ৯৬৬ জন। আর স্বতন্ত্র প্রার্থী রয়েছেন ৭৪৭ জন।

ইসি সচিব মো. জাহাঙ্গীর আলম বলেছেন, মনোনয়নপত্র যাচাই-বাছাই প্রক্রিয়ায় কোনো অসঙ্গতি বা অনিয়ম থাকলে প্রার্থীদের প্রার্থিতা প্রত্যাহার করতে ১৭ ডিসেম্বর পর্যন্ত সময় দেওয়া হবে।

উল্লেখ্য, প্রধান নির্বাচন কমিশনার কাজী হাবিবুল আউয়াল ১৫ নভেম্বর ঘোষিত তফসিল অনুযায়ী, আগামী ৭ জানুয়ারি দ্বাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচন অনুষ্ঠিত হবে। সারাদেশে ৪২ হাজার ১০৩টি ভোটকেন্দ্রের অধীনে মোট ১১ কোটি ৯৬ লাখ ৯১ হাজার ৬৩৩ জন ভোটার এই নির্বাচনে ভোট দিতে পারবেন।

বার্তা বাজার/জে আই