বগুড়ার ধুনটে স্বেচ্ছাসেবক লীগ নেতার পুলিশের বুলেটপ্রুফ জ্যাকেট পরা ছবি সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমে প্রকাশের ঘটনায় শহিদুল ইসলাম নামে এক উপপরিদর্শক (এসআই) প্রত্যাহার হয়েছেন।

মঙ্গলবার (৭ নভেম্বর) সকালে প্রত্যাহারের বিষয়টি জানান ধুনট থানা পুলিশের ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) রবিউল ইসলাম।

এর আগে ৩১ অক্টোবর বুলেটপ্রুফ জ্যাকেট পরে সাজেদুল ইসলাম সাগর নামে এক স্বেচ্ছাসেবক লীগ নেতা সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমে ছবি পোস্ট করেন। ওই ঘটনায় ব্যাপক সমালোচনা শুরু হলে পরদিন তাকে আটক করে ধুনট থানা পুলিশ। একই সঙ্গে বুলেটপ্রুফ ওই জ্যাকেটের দায়িত্বে থাকা এসআই শহিদুল ইসলামকে প্রত্যাহার করে পুলিশ লাইনসে সংযুক্তের নির্দেশ দেওয়া হয়।

ছবির পোস্টদাতা সাজেদুল ইসলাম ধুনট উপজেলার নীমগাছী ইউনিয়নের নানজার পাড়া গ্রামের বাসিন্দা। তিনি উপজেলা স্বেচ্ছাসেবক লীগের যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক।

পুলিশ ও স্থানীয় সূত্র জানায়, ৩১ অক্টোবর দুপুরের দিকে এসআই শহিদুল পুলিশের কয়েক সদস্য নিয়ে অবরোধের সময় উপজেলার সোনাহাটা বাজার এলাকায় দায়িত্ব পালন করছিলেন। এ সময় শহিদুল ইসলাম তার গায়ের বুলেটপ্রুফ জ্যাকেটটি খুলে সোনাহাটা বিট পুলিশিং কার্যালয়ে টেবিলে রেখে দেন।

ওই সময় সেখানে স্বেচ্ছাসেবক লীগ নেতা সাজেদুল ইসলামও ছিলেন। সাজেদুল সবার অজান্তে জ্যাকেটটি পরে একটি ছবি তোলেন। পরবর্তীতে সেই ছবি তিনি ফেসবুকের মাই ডে-তে পোস্ট করেন। মুহূর্তের মধ্যেই ছবিটি ছড়িয়ে পড়ে। নানা ধরনের নেতিবাচক মন্তব্যও লেখেন ফেসবুক ব্যবহারকারীরা। পরে সাজেদুল ওই পোস্ট মুছে ফেলেন।

ধুনট থানা পুলিশের ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) রবিউল ইসলাম বলেন, দায়িত্বে অবহেলার জন্য এসআই শহিদুলকে ওই দিনই প্রত্যাহার করা হয়েছিল। তবে গতকাল সোমবার তাকে সম্পূর্ণভাবে ছাড়পত্র দিয়ে পুলিশ লাইন্সে সংযুক্ত করা হয়। আর সাজেদুল তার ভুল স্বীকার করায় তার বিরুদ্ধে অন্য কোনো ব্যবস্থা নেওয়া হয়নি। তাছাড়া ওই জ্যাকেট পরে সে বিট পুলিশের কার্যালয়ের বাইরে যায়নি। এ জন্য এমন কাজ আর করবে না মর্মে তার বাবার কাছে মুচলেকা নিয়ে ছেড়ে দেওয়া হয়।

বার্তা বাজার/জে আই