বাংলাদেশ জাতীয়তাবাদী দল বিএনপির ৪৫তম প্রতিষ্ঠা বার্ষিকী উপলক্ষে রাজবাড়ীতে বিএনপি ও অঙ্গ সংগঠনের আয়োজনে র‌্যালীতে পুলিশের সাথে সংঘর্ষের ঘটনা ঘটেছে। এ সংঘর্ষে তিন পুলিশ সদস্যসহ ২০জন আহত হয়েছে।

শনিবার (২ সেপ্টেম্বর) বেলা ১২টার দিকে শহরের সজ্জনকান্দা মহিলা কলেজ এলাকায় রাজবাড়ী জেলা বিএনপির সাবেক সভাপতি আলী নেওয়াজ মাহমুদ খৈয়মের বাসভবন থেকে র‌্যালীটি বের হয়ে পান্না চত্বর প্রদক্ষিণ করে পুনরায় খৈয়মে বাসভবনে আসার সময় শিল্পকলা মোড়ে এ সংঘর্ষের ঘটনা ঘটে।

এ সময় পুলিশ পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে আনতে টিয়ারশেল, রাবার বুলেট, কাঁদানে গ্যাস ও কয়েক রাউন্ড গুলি বর্ষণ করলে বিএনপির কর্মীরা ছত্রভঙ্গ হয়ে যায়। পরে বিএনপি নেতা খৈয়মের বাসভবনের সামনে কিছু উচ্ছৃঙ্খল কর্মী পুলিশকে লক্ষ্য করে ইটপাটক্ষেল নিক্ষেপ করাসহ উস্কানীমুলক শ্লোগান দিতে থাকে। এসময় পুলিশ সেখানে কাঁদানো গ্যাস নিক্ষেপ করে। এর বেশ কিছুক্ষণ বিএনপির কর্মীরা পিছু হটে আসলে পরিস্থিতি শান্ত হয়।

রাজবাড়ী-১ আসনের সাবেক সংসদ সদস্য ও জেলা বিএনপির সাবেক সভাপতি আলী নেওয়াজ মাহমুদ খৈয়াম বলেন, বিএনপির ৪৫ তম প্রতিষ্ঠা বার্ষিকী উপলক্ষে আজ আমাদের দলীয় কর্মসূচীর অংশ হিসেবে আনন্দ র‌্যালী ও আলোচনা সভা ছিলো। আমরা প্রশাসনের অনুমতি নিয়েই কর্মসূচী করেছিলাম। শোভাযাত্রায় প্রায় ১০ হাজার নেতাকর্মী অংশগ্রহণ করে। শান্তিপূর্ণ শোভাযাত্রাটি পান্না চত্বর অতিক্রম করলে পুলিশ অতর্কিতভাবে গুলি বর্ষণ করে। এতে আমাদের ১০/১২ জন নেতাকর্মী আহত হয়েছে। আমাদের শান্তিপূর্ণ শোভাযাত্রায় পুলিশের অতর্কিত হামলার তীব্র নিন্দা ও প্রতিবাদ জানাই।

রাজবাড়ীর অতিরিক্ত পুলিশ সুপার (প্রশাসন ও অর্থ) মোঃ সালাহউদ্দিন বলেন, প্রতিষ্ঠা বার্ষিকী উপলক্ষে রাজবাড়ীতে খৈয়ম গ্রুপ শোভাযাত্রা বের করে। শোভাযাত্রাটি পান্না চত্বর প্রদক্ষিণ করে শিল্পকলা মোড়ে আসলে তারা পুলিশের ওপর অতর্কিত হামলা চালায়।

তাদের প্রত্যেকের হাতে ইটপাটকেল, লাঠিসোঁটা ছিলো। উস্কানিমূলক ভাবে তারা পুলিশের ওপর হামলা চালায়। এতে তিন পুলিশ সদস্য আহত হয়েছে। এ ঘটনায় কয়েকজন আটক করা হয়েছে।

বার্তা বাজার/জে আই