১৬, জানুয়ারী, ২০১৯, বুধবার | | ৯ জমাদিউল আউয়াল ১৪৪০

বাকৃবিসাসের বর্ষসেরা ফিচার লেখক শাহীন সরদার সাংবাদিক আবুল বাশার

আপডেট: জানুয়ারি ১৪, ২০১৯

বাকৃবিসাসের বর্ষসেরা ফিচার লেখক শাহীন সরদার সাংবাদিক আবুল বাশার

রাফী উল্লাহ, বাকৃবি প্রতিনিধি: বাংলাদেশ কৃষি বিশ্ববিদ্যালয়ে (বাকৃবি) বিভিন্ন জাতীয় দৈনিক ও অনলাইনে কর্মরত সাংবাদিকদের সংগঠন বাকৃবি সাংবাদিক সমিতি (বাকৃবিসাস)। ১৯৬১ সালে বিশ্ববিদ্যালয় প্রতিষ্ঠার দুই বছর পর ১৯৬৩ সাল থেকে যাত্রা শুরু করে বাকৃবি সাংবাদিক সমিতি। সাংবাদিকতা বিষয়ে বিশ্ববিদ্যালয়ের কোন ডিগ্রি না থাকলেও পড়ালেখার পাশাপাশি বিশ্ববিদ্যালয়ের গবেষণা, উন্নয়ন, দুর্নীতি, অনিয়ম, সভা-সেমিনার, সাংস্কৃতিক-রাজনৈতিক কর্মকান্ডসহ বিশ্ববিদ্যালয়ে ঘটে যাওয়া সংবাদ প্রতিনিয়ত জাতির সামনে তুলে ধরছেন বাকৃবিসাসের সদস্যরা।

সাংবাদিকদের অনুপ্রেরণা ও উৎসাহ জুগাতে প্রতিবছর দুইজনকে দুই ক্যাটাগরিতে বর্ষসেরা ঘোষণা করা হয়। সারাবছরের সংবাদ ও কাজের দক্ষতার ভিত্তিতে ঘোষনা করা হয় বর্ষসেরা ফিচার লেখক ও সাংবাদিক। এরই ধারাবাহিকতায় বাংলাদেশ কৃষি বিশ্ববিদ্যালয় সাংবাদিক সমিতির (বাকৃবিসাস) বর্ষসেরা ফিচার লেখক ২০১৮’ নির্বাচিত হয়েছেন দৈনিক যুগান্তরের বিশ্ববিদ্যালয় প্রতিনিধি মো. শাহীন সরদার এবং বর্ষসেরা সাংবাদিক নির্বাচিত হয়েছেন দৈনিক কালের কণ্ঠের বিশ্ববিদ্যালয় প্রতিনিধি আবুল বাশার মিরাজ। বাকৃবি সাংবাদিক সমিতির কার্যনির্বাহী কমিটি ১৮’র সভাপতি শাহীদুজ্জামান সাগর ও সাধারণ সম্পাদক মোফাজ্জল হোসেন মায়া বার্ষিক প্রতিবেদন মূল্যায়নের ভিত্তিতে এ পুরষ্কার ঘোষণা করেন। বাকৃবিসাসের কার্যনির্বাহী কমিটি ২০১৯’ এর দ্বায়িত্ব হস্তান্তর অনুষ্ঠানে বর্ষসেরা ফিচার লেখক ও বর্ষসেরা সাংবাদিকের ক্রেস্ট ও সনদ তুলে দেন বিশ্ববিদ্যালয়ের উপাচার্য অধ্যাপক ড. মো. আলী আকবর।

এসময় দায়িত্ব হস্তান্তর অনুষ্ঠানে বিদায়ী সভাপতি শাহীদুজ্জামান সাগরের সভাপতিত্বে প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন বিশ্ববিদ্যালয়ের উপাচার্য অধ্যাপক ড. মো. আলী আকবর। সম্মানিত অতিথি হিসেবে বিশ্ববিদ্যালয়ের উপ-উপাচার্য অধ্যাপক ড. জসিমউদ্দিন খান, অনুষ্ঠানে বিশেষ অতিথি হিসেবে গণতান্ত্রিক শিক্ষক ফোরামের সভাপতি অধ্যাপক ড. লুৎফুল হাসান উপস্থিত ছিলেন। এছাড়াও অনুষ্ঠানে সদ্যবিদায়ী ছাত্রবিষয়ক উপদেষ্টা অধ্যাপক ড. সচ্চিদানন্দ দাস চৌধুরী, সহযোগী ছাত্র বিষয়ক উপদেষ্টা অধ্যাপক ড. মো. মোক্তার হোসেন, গ্রাজুয়েট ট্রেনিং ইনস্টিটিউটের সাবেক পরিচালক অধ্যাপক ড. মাছুমা হাবিব সহ বিশ্ববিদ্যালয়ের বিভিন্ন পত্রিকার সাংবাদিকবৃন্দ উপস্থিত ছিলেন।

এ বিষয়ে সদ্যবিদায়ী সভাপতি শাহীদুজ্জামান সাগর বলেন, সারাবছরের সকল দিক বিবেচনা করে বর্ষসেরা ফিচার লেখক ও সাংবাদিক ঘোষনা করা হয়। যাতে অন্যান্য সদস্যরাও তাদের সংবাদ পরিবেশনা ও কর্মদক্ষতা বৃদ্ধিতে অনুপ্রাণিত হয়।
নতুন কার্যনির্বাহী কমিটির সভাপতি মোফাজ্জল হোসেন মায়া বলেন, প্রথমেই অভিনন্দন ও ধন্যবাদ জানাই এই অর্জনের জন্য। এই বছরও যেন আরো নতুনরূপে কর্মদক্ষ হিসেবে পরিচিত করতে পারো নিজেদের।

উল্লেখ্য, বিশ্ববিদ্যালয় প্রতিনিধি মো. শাহীন সরদার এর পূর্বে বর্ষসেরা সাংবাদিক ১৬’ এবং বর্ষসেরা ফিচার লেখক ১৭’ নির্বাচিত হন। বিশ্ববিদ্যালয় প্রতিনিধি আবুল বাশার মিরাজ এর পূর্বে বর্ষসেরা সাংবাদিক ১৭’ নির্বাচিত হন।