১৬, জানুয়ারী, ২০১৯, বুধবার | | ৯ জমাদিউল আউয়াল ১৪৪০

প্রধানমন্ত্রীর সঙ্গে আরও যারা হ্যাট্রিক করলেন

আপডেট: জানুয়ারি ২, ২০১৯

প্রধানমন্ত্রীর সঙ্গে আরও যারা হ্যাট্রিক করলেন

একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনে বিশাল জয়ের মাধ্যমে হ্যাট্ট্রিক সরকার গঠন করতে যাচ্ছে আওয়ামী লীগ। সেই সঙ্গে হ্যাট্রিক প্রধানমন্ত্রী হতে যাচ্ছেন শেখ হাসিনা। শুধু প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনাই নয় সেই সঙ্গে আরও বেশ কিছু আওয়ামী লীগের নেতা সংসদ সদস্য হিসেবে তিনবার জয় পেয়ে হাট্রিকের রেকর্ড করেছেন।

তোফায়েল আহমেদ: বাণিজ্যমন্ত্রী তোফায়েল আহমেদ ভোলা থেকে আওয়ামী লীগের প্রার্থী হিসাবে ১৯৭৩, ১৯৮৬, ১৯৯১, ১৯৯৬, ২০০৮ ও ২০১৪ এবং সর্বশেষ একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনে জয় লাভ করেন।

আমির হোসেন আমু: ঝালকাঠি-২ আসন থেকে আওয়ামী লীগের প্রার্থী শিল্পমন্ত্রী আমির হোসেন আমু নৌকা প্রতীকে ২ লাখ ১৪ হাজার ৯৩৭ ভোট পেয়ে জয়ী হয়েছেন। এই আসনে তিনি নবম এবং দশম জাতীয় সংসদ নির্বাচনেও সাংসদ নির্বাচিত হয়েছিলেন।

মতিয়া চৌধুরী: শেরপুর-২ আসনে কৃষিমন্ত্রী মতিয়া চৌধুরী একাদশ জাতীয় সংসদে বিপুল ভোটে জয়লাভ করে পঞ্চম বারের মত সংসদ সদস্য নির্বাচিত হয়েছেন। তিনি এই আসন থেকে ১৯৯১, ১৯৯৬, ২০০৮, ২০১৪ সালে নির্বাচিত হন।

ওবায়দুল কাদের: নোয়াখালী-৫ আসনে আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক ওবায়দুল কাদের ২,৫২,৭৪৪ ভোট পেয়ে জয়ী হয়েছেন। তার নিকটতম প্রতিদ্বন্দ্বী মওদুদ আহমদ পেয়েছেন ১০,৯৭০ ভোট। সেতুমন্ত্রী ২০০৮ সাল এবং ২০১৪ সালেও এই আসনের এমপি ছিলেন।

খন্দকার মোশাররফ হোসেন: ফরিদপুর-৩ আসনে স্থানীয় সরকার পল্লী উন্নয়ন ও সমবায় মন্ত্রী ইঞ্জিনিয়ার খন্দকার মোশাররফ হোসেন দুই লাখ ৭৪ হাজার ৮৭১ ভোট পেয়ে জয়লাভ করেছে। তিনি এই আসনে আগের দুই বারেরও এমপি ছিলেন

সাজেদা চৌধুরী: একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনে ফরিদপুর-২ আসনে সংসদ উপনেতা সাজেদা চৌধুরী নির্বাচিত হয়েছেন। তিনি এই আসন থেকে গত দুই বারেও সংসদ সদস্য নির্বাচিত হয়েছিল।

শেখ ফজলুল করিম সেলিম: একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনী জয়ী হয়ে রেকর্ড গড়ছেন আওয়ামী লীগের প্রেসিডিয়াম সদস্য শেখ ফজলুল করিম সেলিম। জাতীয় সংসদ নির্বাচনে টানা আটবারের মতো সংসদ সদস্য নির্বাচিত হলেন তিনি। ১৯৮০ সালে গোপালগঞ্জ-২ আসন থেকে নৌকা প্রতীকে প্রথম সংসদ সদস্য নির্বাচিত হন বঙ্গবন্ধু পরিবারের এই সদস্য। এরপর আর কখনও তিনি হারেননি।

ফারুক খান: এবারের নির্বাচনে গোপালগঞ্জ-১ আসনে ফারুক খান নৌকা প্রতীক নিয়ে ৩ লাখ ৩ হাজার ২২ ভোট পেয়ে জয়ী হয়েছেন। তিনি এই আসনে ১৯৯৬ সাল থেকে টানা সংসদ সদস্য হিসেবে দায়িত্ব পালন করেছেন।

ডা. দীপু মনি: একাদশ জাতীয় নির্বাচনে চাঁদপুর-৩ আসন থেকে নির্বাচিত হয়েছেন ডা. দীপু মনি। নৌকার প্রতীক নিয়ে সাবেক এই পররাষ্ট্রমন্ত্রী পেয়েছেন ৩,০৬,৮৯৫ ভোট। তিনি ২০০৮ সাল এবং ২০১৪ সালেও এই আসনের সংসদ সদস্য ছিলেন।

নুরুল ইসলাম নাহিদ: শিক্ষামন্ত্রী নুরুল ইসলাম নাহিদ ২০০৮ সালে নবম জাতীয় সংসদ নির্বাচনে সিলেট-৬ আসন থেকে নৌকা প্রতীকের প্রার্থী হিসেবে বিজয়ী হন। এরপর ২০১৪ সাল এবং সর্বশেষ গত ৩০ জানুয়ারির নির্বাচনে তিনি নির্বাচিত হয়ে পরপর তিনবার জয় পান। এবারের নির্বাচনে তিনি নৌকা প্রতীকে পেয়েছেন ১ লাখ ৯৬ হাজার ১৫ ভোট।

সাহারা খাতুন: অ্যাডভোকেট সাহারা খাতুন একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনে ঢাকা-১৮ আসনে নৌকা প্রতীকে ৩ লাখ ২, হাজার ৬ ভোট পেয়ে বিজয়ী হয়েছেন। তিনি এই আসনে এর আগের দুইবারেও সংসদ সদস্য ছিলেন।

শেখ ফজলে নূর তাপস: ব্যারিস্টার শেখ ফজলে নূর তাপস ঢাকা-১০ আসন থেকে ১ লাখ ৬৮ হাজার ১৭২ ভোট পেয়ে জয়ী হয়েছেন। তিনি এই আসনে গতবারেও সংসদ সদস্য ছিলেন। এছাড়াও নবম জাতীয় সংসদ নির্বাচনে তাপস ঢাকা ১২ আসন থেকে নির্বাচন করে জয়ী হয়েছিলেন। সেই হিসেবে তিনিও সংসদ সদস্য হিসেবে হ্যাট্রিক করেছেন।

শাহরিয়ার আলম: একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনে রাজশাহী-৬ আসনে বিপুল ভোটে বিজয়ী হয়েছেন আওয়ামী লীগের পররাষ্ট্র প্রতিমন্ত্রী শাহরিয়ার আলম। এই জয়ের সুবাদে টানা তিনবার তিনি এই আসন থেকে নির্বাচিত হলেন।

হাসানুল হক ইনু: কুষ্টিয়া-২ আসনের আওয়ামী লীগের নৌকা প্রতীকে ২ লাখ ৮২ হাজার ৬২২ ভোট পেয়ে নির্বাচিত হয়েছেন জাসদ সভাপতি হাসানুল হক ইনু। তিনি এই আসন থেকে নবম এবং দশম জাতীয় সংসদ নির্বাচনেও জয়ী হয়েছিলেন। এবারের জয়ের মাধ্যমে তিনি সংসদ সদস্য হিসেবে হ্যাট্রিক করলেন।

জুনাইদ আহমেদ পলক: নাটোর-৩ আসনে একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনে জয়ী হয়েছেন তথ্য ও যোগাযোগ প্রযুক্তি প্রতিমন্ত্রী আওয়ামী লীগের প্রার্থী জুনাইদ আহমেদ পলক। তিনি এই আসন থেকে ২০০৮ এবং ২০১৪ সালের নির্বাচনে এমপি নির্বাচিত হয়েছিলেন।

আসাদুজ্জামান নূর: আসাদুজ্জামান নূর নীলফামারী-২ আসন থেকে ২০০১, ২০০৮ এবং ২০১৪ সালে সংসদ সদস্য হিসেবে নির্বাচিত হন। এবারের নির্বাচনেও তিনি এই আসন থেকে জয়ী হয়েছেন।

ইমরান আহমদ: সিলেট জেলা আওয়ামী লীগের সহ-সভাপতি ইমরান আহমদ ২০০৮ সালে নৌকা প্রতীক নিয়ে সিলেট-৪ আসনে বিজয়ী হন। তিনিও ২০১৪ সাল এবং ২০১৮ সালে এই আসন থেকে এমপি নির্বাচিত হন। এবারে তিনি পেয়েছেন ২ লাখ ২৩ হাজার ৬৭৫ ভোট।

মাহমুদ উস সামাদ চৌধুরী: সিলেট-৩ আসনে মাহমুদ উস সামাদ চৌধুরী ২০০৮ সালে নির্বাচিত হন। এরপর তিনি দশম এবং একাদশ সংসদ নির্বাচনেও জয়ী তিনি। এবারে তিনি ভোট ১ লাখ ৭৬ হাজার ৫৮৭ ভোট।

আব্দুস শহীদ: মৌলভীবাজার-৪ আসনে টানা ৬ষ্ঠ বারের মতো নির্বাচিত হয়ে ডাবল হ্যাট্রিক করেছেন ড. আব্দুস শহীদ। সাবেক চিফ হুইপ আব্দুস শহীদ এ আসনে ১৯৯১ সালে, ১৯৯৬ সালে, ২০০১ সালে, ২০০৮ সালে, ২০১৪ সালে এবং সর্বশেষ ২০১৮ সালের একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনেও জয়লাভ করেন। যার ফলে তিনি ডাবল হ্যাটট্রিকের রেকর্ড করছেন।

এম এ মান্নান: একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনে সুনামগঞ্জ-৩ আসনে অর্থ প্রতিমন্ত্রী এম এ মান্নান বিপুল ভোটে জয়ী হয়েছেন। তিনি এই আসনে এর আগের দুই বারেও সংসদ সদস্য ছিলেন।

এডভোকেট আবু জাহির: হবিগঞ্জ-৩ আসনে ১ লাখ ৯৩ হাজার ৮৭৩ ভোট পেয়ে নির্বাচিত হয়েছেন আওয়ামী লীগের সাবেক এমপি এডভোকেট আবু জাহির। এবার নিয়ে তিনি ৩য় বারের মত সংসদ সদস্য নির্বাচিত হলেন।

মোস্তাফিজুর রহমান ফিজার: একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনে দিনাজপুর-৫ আসনে সপ্তম বারের মতো বিজয়ী হয়েছেন মহাজোট প্রার্থী গণশিক্ষা মন্ত্রী মুক্তিযোদ্ধা অ্যাডভোকেট মোস্তাফিজুর রহমান ফিজার। মোস্তাফিজুর রহমান ফিজার ১৯৮৬ সালে প্রথম সংসদ সদস্য নির্বাচিত হন। এরপর ১৯৯১, ৯৬, ২০০১, ২০০৮ এবং ২০১৪ সালে তিনি এ আসন থেকে এমপি নির্বাচিত হন।

উল্লেখিত ছাড়াও আরও কিছু সংসদ সদস্য আছেন যারা এবারের নির্বাচনে জয়ের মাধ্যমে টানা তিনবার সংসদ সদস্য হয়ে হ্যাট্রিক করেছেন। এর মধ্যে আছে ঢাকা ৯ আসনের সাবের হোসেন চৌধুরী, বাগের হাট ১ আসনের শেখ হেলাল উদ্দিন, ঢাকা ২ আসনের কামরুল ইসলাম।