১৪, ডিসেম্বর, ২০১৮, শুক্রবার | | ৫ রবিউস সানি ১৪৪০

রওশন বললেন, ‘আমিই সব’, এরশাদ বললেন, ‘হু ইজ সি’

আপডেট: ডিসেম্বর ৮, ২০১৮

রওশন বললেন, ‘আমিই সব’, এরশাদ বললেন, ‘হু ইজ সি’

জাতীয় পার্টির মনোনয়ন নিয়ে চূড়ান্ত যুদ্ধে অবতীর্ণ হয়েছেন পার্টির চেয়ারম্যান এইচ এম এরশাদ এবং পার্টির সিনিয়র কো-চেয়ারম্যান বেগম রওশন এরশাদ। গতকাল সরকারের সঙ্গে দফায়-দফায় বৈঠক করে আসন বণ্টন নিশ্চিত করেছেন জাপার নয়া মহাসচিব মশিউর রহমান রাঙ্গা। জাতীয় পার্টি ক্ষমতাসীন আওয়ামী লীগের কাছে যে কয়টি আসন চেয়েছিল তা কোনভাবেই দেওয়া হয়নি। এরশাদ শেষ মুহূর্তে এবিএম রুহুল আমিন হাওলাদারকে সরিয়ে সরকারের এলজিইডি প্রতিমন্ত্রী মশিউর রহমান রাঙ্গাকে নতুন মহাসচিব করেছিলেন সরকারের সঙ্গে আসন দরকষাকষিতে যাতে লাভবান হয়।

মহাসচিবের দায়িত্ব পেয়ে রাঙ্গাও মোটামুটি আশাবাদী ছিলেন আওয়ামী লীগের কাছ থেকে কাঙ্ক্ষিত আসন বাগিয়ে নিতে পারবেন। কিন্তু আসন এবং কিছু প্রার্থী প্রশ্নে ক্ষমতাসীন আওয়ামী লীগ ছিল অনড়। বেশ কয়েকটি আসনে প্রার্থী পরিবর্তন নিয়ে বেগম রওশন এরশাদের সঙ্গে এরশাদের যুদ্ধ শুরু হয়। এরশাদের দেওয়া তালিকা অনুযায়ী আসন বন্টন করতে গেলে বাধে বিপত্তি। নয়া মহাসচিবকে সাফ জানিয়ে দেন রওশন এরশাদ, ‘পার্টিতে আমিই সব, আমার কথা অনুযায়ী দল পরিচালিত হবে। সরকারের সাথে যে সমঝোতা হবে তা আমার কথাতেই হবে।’

বেগম রওশন এরশাদের এমন মনোভাবের কথা এরশাদকে জানাতেই তেলে-বেগুনে জ্বলে উঠেন তিনি। এক পর্যায়ে এরশাদ বেগম রওশন এরশাদকে উদ্দেশ্য করে বলেন, ‘হু ইজ সি’। এদিকে, যারা মনোনয়ন প্রাপ্তির আশায় এরশাদ এবং সাবেক মহাসচিব এবিএম রুহুল আমিন হাওলাদারকে টাকা দিয়েছিলেন গতকাল শুক্রবার সেসব প্রার্থী দিনভর দৌড়ঝাঁপ করেছেন নয়া মহাসচিবের বাসভবনে। কেউ কেউ সাক্ষাতের চেষ্টা চালিয়েছেন বেগম রওশন এরশাদের কাছে কিন্তু রওশন এরশাদ কারও সঙ্গেই দেখা করেনি।