২০, নভেম্বর, ২০১৮, মঙ্গলবার | | ১১ রবিউল আউয়াল ১৪৪০

ঢাকায় শেষ টেস্টে বাংলাদেশের সম্ভাব্য একাদশ

আপডেট: নভেম্বর ১০, ২০১৮

ঢাকায় শেষ টেস্টে বাংলাদেশের সম্ভাব্য একাদশ

সিলেট টেস্টে ব্যাটসম্যানদের ব্যর্থতার কারনেই ভরাডুবি হয়েছিল বাংলাদেশের। দুই ইনিংসে জিম্বাবুয়ের বিপক্ষে দলীয় স্কোর ২০০ (১৪৩ ও ১৬৯) পার হতে পারেনি টাইগার বাহিনী। ফলে টেস্ট হেরে সিরিজে ব্যাকফুটে মাহমুদউল্লাহ বাহিনী।

আর তাই, সিরিজ ড্র করতে হলে রবিবার অনুষ্ঠিতব্য শেষ ম্যাচে জয়ের কোনো বিকল্প নেই বাংলাদেশের।

সিলেট টেস্টে মাত্র একজন পেসার নিয়ে জিম্বাবুয়েকে মোকাবেলা করেছে বাংলাদেশ। ম্যাচ হেরে যাওয়ার পর সেটা নিয়েও নানা সমালোচনার মুখেও পড়তে হয়েছে নির্বাচকদের। আগামীকাল (১১ নভেম্বর) মিরপুরে সিরিজের দ্বিতীয় ও শেষ ম্যাচে জিম্বাবুয়ের মুখোমুখি হবে টাইগাররা। সিরিজ বাঁচাতে এই ম্যাচে জয়ের বিকল্প নেই তাদের। ফলে সিলেটর ভুল শুধরে ঢাকায় সেরা একাদশ নিয়ে মাঠে নামতে চায় টাইগাররা। কাজেই একাদশে যে পরির্বতন আসছে, তা মোটামুটি নিশ্চিত।

সিলেট টেস্টে পেস আক্রমণের দায়িত্বে ছিলেন আবু জায়েদ রাহী। গত ম্যাচে সুযোগ পাওয়া রাহী খুব একটা সুবিধা করে উঠতে পারেননি। ঢাকা টেস্টে একাদশে জায়গা হারাতে পারেন তিনি। আবু জায়েদ রাহীর কী হবে? দুই ইনিংসে ২৮ ওভার বোলিং করে নিয়েছেন মাত্র একটি উইকেট। তবে এই পেসারকে বাদ দেয়ার বিষয়টি এখনো চূড়ান্ত হয়নি। যদি সত্যিই তাকে বাদ দেওয়া হয় তাহলে দীর্ঘ দিন পর লাল বলে ফিরবেন শফিউল। পেস বোলিংয়ে শক্তি বাড়াতে মুস্তাফিজুর রহমানকে একাদশে রাখা প্রায় নিশ্চিত। নাজমুল হোসেন শান্তর জায়গায় ফিরতে পারেন মোহাম্মদ মিথুন। এছাড়া সুযোগ পেতে পারেন খালেদ আহমেদও।

বোলিংয়ে দুই পরির্বতন নিয়ে আলোচনা চললেও বাংলাদেশের ব্যাটিংয়ে খুব একটা পরিবর্তনের সম্ভবনা নেই। তবে স্পিনে নেতৃত্ব থাকবে তাইজুল ইসলাম ও মেহেদী হাসান মিরাজের উপরেই।

সবমিলিয়ে ঢাকা টেস্টে যে টাইগার একাদশে পরিবর্তন আসছে তা প্রায় নিশ্চিত।

বাংলাদেশ একাদশ:

১. লিটন দাস।

২. ইমরুল কায়েস।

৩. মুমিনুল হক।

৪. নাজমুল হোসেন শান্ত/ মোহাম্মদ মিথুন।

৫. মাহমুদউল্লাহ (অধিনায়ক)।

৬. মুশফিকুর রহিম (উইকেটরক্ষক)।

৭. আরিফুল হক।

৮. মেহেদী হাসান মিরাজ।

৯. তাইজুল ইসলাম।

১০. মুস্তাফিজুর রহমান।

১১. আবু জায়েদ রাহী/শফিউল ইসলাম/খালেদ আহমেদ।