শাহজাদপুরে দু‘পক্ষের সংঘর্ষে আহত ৪, মোটরসাইকেল ভাংচুর

সিরাজগঞ্জের শাহজাদপুর উপজেলার পোরজনা ইউনিয়নের জামিরতা ডিগ্রি কলেজ গেটের সামনে রবিবার বিকেলে দু‘পক্ষের সংঘর্ষের ঘটনায় মোটর সাইকেল ভাংচুর ও ৪ জন আহত হয়েছে। আহতদের বিভিন্ন হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে।

আহতরা হলেন, শাহজাদপুর উপজেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি ও সাবেক এমপি চয়ন ইসলামের ব্যক্তিগত সহকারী জমির উদ্দিন (৪০), শাহজাদপুর পৌর ছাত্রলীগের সভাপতি রানা শেখ (২২), পোরজনা ইউনিয়ন সেচ্ছাসেবক লীগের সাবেক আহব্বায়ক আবু হোসাইন বাবু (৫২) ও মহসিন আলী (৩৪)। এ ঘটনায় জমির উদ্দিন বাদী হয়ে শাহজাদপুর থানায় একটি অভিযোগ দায়ের করেছে। অপরদিকে আবু হোসাইন বাবু বাদী হয়ে শাহজাদপুর চৌকি আদালতে একটি মামলা দায়েরের প্রস্তুতি নিচ্ছে।

এ বিষয়ে পোরজনা ইউনিয়ন সেচ্ছাসেবক লীগের সাবেক আহব্বায়ক আবু হোসাইন বাবু বলেন, জমির উদ্দিন প্রায়ই আমার দ্বিতীয়পক্ষের স্ত্রীকে মোবাইল ফোনে উত্ত্যাক্ত করে। আমি এর প্রতিবাদ করায় সে আমাকে অকথ্যভাষায় গালিগালাজ করে ও হুমকি প্রদর্শন করে। ঘটনার সময় আমি এ বিষয়ে কথা বলতে গেলে জমির উদ্দিন ও তার লোকজন আমাদের উপর হামলা চালিয়ে বেধরক মারপিট করে আমাদের গুরুতর আহত করে। এ সময় তারা আমার একটি মোটরসাইকেলও ভাংচুর করে।

আবু হোসাইন বাবুর এ অভিযোগ অস্বীকার করে জমির উদ্দিন বলেন, আমি কাউকে উত্ত্যাক্ত করিনি। আমার বিরুদ্ধে আনিত অভিযোগ সত্য নয়। এটা সম্পূর্ণ মিথ্যা, বানোয়াট ও উদ্দেশ্য প্রণোদিত।

তিনি আরও বলেন, আমি ও রানা শেখ জামিরতা ডিগ্রি কলেজ মাঠে দাড়িয়ে ছিলাম। হঠাৎ আবু হোসাইন বাবু আমাদের কলেজ গেটের সামনে ডেকে নিয়ে লোহার পাইপ ও দেশীয় আস্ত্রশস্ত্র নিয়ে আতর্কিতে হামলা চালিয়ে বেধরক মারপিট করে গুরুতর আহত করে। স্থানীয়রা আমাদের উদ্ধার করে হাসপাতালে পাঠায়। তার মোটরসাইকেলটি কে বা কারা ভাংচুর করেছে তা আমার জানা নেই। আমাদের কেউ এ ভাংচুরের সাথে জড়িত নয়।

এ বিষয়ে শাহজাদপুর থানার ওসি নজরুল ইসলাম বলেন,এ ঘটনার পর জমির উদ্দিন বাদী হয়ে থানায় একটি লিখিত অভিযোগ করেছে। এ বিষয়ে তদন্ত করে প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা নেয়া হবে।

রাকিব/বার্তাবাজার/এম আই

বার্তা বাজার .কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।
এই বিভাগের আরো খবর