জমি সংক্রান্ত বিরোধে প্রতিপক্ষের হামলায় নিহত ১, আহত ৩

রাজবাড়ীর গোয়াল‌ন্দে জমির সীমানা পিলার বসানোর জের ধরে প্রতি পক্ষের হামলায় মান্নান ফকির মান্দু (৬৫) নামে এক ব্যক্তি নিহত হয়েছে।

শুক্রবার (১৪ মে) বিকালে ফরিদপুর মেডিকেল কলেজ হাসপাতলে চিকিৎসাধীন অবস্থায় তার মৃত্যু হয়। এর আগে সকালে উপজেলার ছোটভাকলা ইউপির বিষ্ণপুর গ্রামে জমির সীমানা পিলার বসানোর সময় প্রতিপক্ষের হামলায় গুরুত্বর আহত হয় মান্নানের ছেলে মিরাজ ও মেয়ে হামিদা বেগম।

মৃত মান্নান ফকির মান্দু (৬৫) উপজেলার ছোটভাকলা ইউপির বিষ্ণপুর গ্রামের সাহাজউদ্দিন ফকিরের ছেলে।

স্থানীয় সূত্রে জানা যায়, রাজবাড়ীর গোয়ালন্দ উপজেলার ছোটভাকলা ইউনিয়নের বিষ্ণপুর গ্রামে সকালে মান্নান ওরফে মান্দু(৬৭) ফকিরের নিজ বাড়ির পাশে বিক্রিত জমির সীমানা নির্ধারণের জন্য স্থানীয় ইউপি চেয়ারম্যান আমজাদ হোসেন, সালাম মেম্বার, স্থানীয় আমিন ওহাবসহ এলাকার গণ্যমান্য ব্যক্তির উপস্থিতিতে জায়গা জমি মাপজোক করে সীমানা নির্ধারণ করে উপস্থিত লোকজন চলে যায়। এসময় ভিকটিম মান্নান তার সীমানায় পিলার বসাতে গেলে আবেদ আলির নিকট হইতে ক্রয়কৃত জমির মালিক মৃত নূরালের ছেলে শামীম বাধা প্রদান করে চলে যায়। এর কিছুক্ষণ পর শামীম, মোস্তকা, মোমিন, মইন, স্বপনসহ ৬/৭ জন দলবদ্ধ ভাবে ঘটনাস্থলে এসে লোহার রড দিয়ে মান্নানের মাথায় আঘাত করে গুরুতর জখম করে। এবং মান্নানকে বাঁচাতে তার মেয়ে হামিদা বেগম ও ছেলে মিরাজ আসলে তাদেরকেও মারপিট করে গুরুতর জখম করে।

এসময় স্থানীয় আত্মীয়স্বজন তাদের উদ্ধার করে প্রথমে রাজবাড়ী সদর হাসপাতালে নিয়ে গেলে জরুরি বিভাগে প্রাথমিক চিকিৎসা দিয়ে উন্নত চিকিৎসার জন্য ফরিদপুর মেডিকেল হাসপাতালে রেফার্ড করেন। তাৎক্ষণিকভাবে অ্যাম্বুলেন্স যোগে ফরিদপুর মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে নিয়ে ভর্তি করলে চিকিৎসাধীন অবস্থায় বিকেল সোয়া ৩টার দিকে মান্নান ফকিরের মৃত হয়।

উক্ত মৃত সংবাদ বাড়িতে পাওয়া পর মান্নানের ভাতিজা রাজা বিবাদীদের বাড়িতে জানাতে গেলে বিবাদীগন তাকেও মারপিট করে।

ছোটভাকলা ইউপি চেয়ারম্যান আমজাদ হোসেন বলেন, জমির সীমানা মাপার নির্ধারিত দিন থাকায় আমরা সেখানে গিয়ে জমি মাপজোক করে সীমানা ঠিক করে দিয়ে চলে আসি। এরপরেই সীমানায় পিলার বসানো নিয়ে মারামারির ঘটনা ঘটে। পরবর্তীতে হাসপাতালে মান্নান ফরিরের মৃত্যু হয়।

গোয়ালন্দ ঘাট থানার ওসি স্বপন কুমার মজুমদার ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করে বলেন, এ ঘটনায় প্রাথমিক জিজ্ঞাসাবাদের জন্য তিনজনকে থানা হেফাজতে আনা হয়েছে।

মেহেদী/বার্তাবাজার/এম আই

বার্তা বাজার .কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।
এই বিভাগের আরো খবর