নিষেধাজ্ঞার পরও মাইকিং করে বিক্রি হচ্ছে জাটকা! 

২০২১ সালের পহেলা নভেম্বর থেকে ২০২২ সালের ৩০ জনু পর্যন্ত জাটকা আহরণ, ক্রয়-বিক্রয় ও মজুদ সম্পূর্ণভাবে নিষিদ্ধ থাকলেও নিষেধাজ্ঞা উপেক্ষা করে ​ভোলার চরফ্যাসন উপজেলায় মাইকিং করে বিক্রি হচ্ছে জাটকা ইলিশ।

শনিবার (১৫ জানুয়ারি) উপজেলার দক্ষিণ আইচা বাজারের মেইন সড়কের পাশে মাইকিং করে জাটকা ইলিশ বিক্রি করতে দেখা গেছে সবুজ নামে এক মৎস্য ব্যবসায়ীকে।

মাইকিংয়ে মৎস্য ব্যবসায়ী সবুজ জাটকা ইলিশের দাম ৫শ টাকা করে বিক্রি করেছেন। এইসব জাটকা ইলিশ গুলো কমদামে ক্রয় করছেন ক্রেতারা। মৎস্য ব্যবসয়ী সবুজের কাছে জাটকা কিনতে আসা ক্রেতাদের ভিড়ও দেখা গেছে।

দক্ষিণ আইচায় নাম প্রকাশ্যে অনিচ্ছুক জাটকা বিক্রয়ের বিষয়ে এক ব্যবসায়ীকে জিজ্ঞেস করলে তিনি বলেন, মাছ বিক্রি ছাড়া বিকল্প কোনো কাজ না থাকার কারণে বাধ্য হয়েই তাদের জাটকা বিক্রয় করতে হয়। আর এই সময়টায় অন্য কোনো মাছ না পাওয়ায় তাঁরা জাটকা বিক্রি করছেন।

খোঁজ নিয়ে জানা গেছে, মেঘনা ও তেতুলিয়া নদী থেকে প্রতিনিয়ত জেলেরা জাটকা ধরে এনে আড়ৎদারদের কাছে বিক্রি করছেন। তাদের থেকে টমটম ও বোরকে করে প্রতিনিয়ত জাটকা ইলিশ ক্রয় করে এনে বিক্রি করছেন ব্যবসায়ীরা। জাটকা ইলিশ বিক্রি করেন উপজেলার দক্ষিণ আইচার নতুন মানিকা, বাবুর হাট, রুহুল আমিন চেয়ারম্যান বাজার ও চরকচ্ছপিয়া বাজারসহ ছোট-বড় হাট বাজারে।

এ বিষয় উপজেলা মৎস্য কর্মকর্তা মারুফ হোসেন মিনারকে একাধিকবার ফোন করা হলেও রিসিভ করেনি।

আরিফ/বার্তাবাজার/এ.আর

বার্তা বাজার .কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।
এই বিভাগের আরো খবর