১৯, জানুয়ারী, ২০১৮, শুক্রবার | | ২ জমাদিউল আউয়াল ১৪৩৯

যেসব বাংলাদেশী বোলার আন্তর্জাতিক ক্রিকেটে হ্যাট্রিক করেছেন

জুবায়ের আহমেদ | বার্তাবাজার.কম

আপডেট: ১২ জানুয়ারী ২০১৮, ০৬:২৪ পিএম

যেসব বাংলাদেশী বোলার আন্তর্জাতিক ক্রিকেটে হ্যাট্রিক করেছেন

জুবায়ের আহমেদ: ১৯৮৬ সালে ওয়ানডে ম্যাচের মাধ্যমে বাংলাদেশ জাতীয় ক্রিকেট দল আন্তর্জাতিক ক্রিকেটে পা রাখলেও ২০০০ সালে টেস্ট স্ট্যাটাস পাওয়ার পর ২০০৩ সালে পাকিস্তানের সাথে প্রথম বাংলাদেশী হিসেবে টেস্টে অলক কাপালি হ্যাট্রিকের গৌরব অর্জন করেন। সেদিন সাব্বির আহমেদ, দিনেশ কেনিরিয়া ও ওমর গুলকে আউট করে হ্যাট্রিক পূর্ণ করেন তিনি।।

তারপর ২০০৬ সালে জিম্বাবুয়ের সাথে পেসার শাহাদাত হোসাইন ওয়ানডেতে প্রথম বাংলাদেশী হিসেবে হ্যাট্রিক করেন। সেদিন মুফামবিসি, চিগাম্বুরা

ও উৎসেয়াকে আউট করে হ্যাট্রিক পূর্ণ করেন তিনি।

টেস্টে দ্বিতীয়বারের মতো হ্যাট্রিকের গৌরব অর্জন করেন সোহাগ গাজী। ২০১৪ সালে নিউজিল্যান্ডের সাথে টেস্টে ২য় বাংলাদেশী হিসেবে হ্যাট্রিক এবং বিশ্বের প্রথম ক্রিকেটার হিসেবে সেঞ্চুরী ও হ্যাট্রিক করার গৌরব অর্জন করেন তিনি। কোরি এন্ডারসন, ওয়াটলিং ও ব্রেসওয়েলকে আউট করে হ্যাট্রিক পূর্ণ করেন তিনি।

২০১০ সালে দ্বিতীয় বাংলাদেশী হিসেবে ওয়ানডেতে জিম্বাবুয়ের সাথে হ্যাট্রিক করেন আবদুর রাজ্জাক। সেদিন উৎসেয়া, প্রাইসও এমপুফুকে আউট করে হ্যাট্রিক পূর্ণ করেন তিনি।

২০১৩ সালে নিউজিল্যান্ডের সাথে তৃতীয় বাংলাদেশী হিসেবে হ্যাট্রিক করেন পেসার রুবেল হোসাইন। সেদিন এন্ডারসন, ম্যাককলাম ও নিশামকে আউট করে হ্যাট্রিক পূর্ণ করেন তিনি।

২০১৪ সালে জিম্বাবুয়ের সাথে নিজের অভিষেক ওয়ানডেতেই ৪র্থ বাংলাদেশী হ্যাট্রিক করেন তাইজুল ইসলাম। সেদিন চাতারা, নায়ুম্বু ও পানিয়াঙ্গারাকে আউট করে হ্যাট্রিক পূর্ণ করেন তিনি। সেই সাথে বিশ্বের একমাত্র ক্রিকেটার হিসেবে অভিষেকেই হ্যাট্রিক করার গৌরব অর্জন করেন।

২০১৭ সালে শ্রীলংকার সাথে ৫ম বাংলাদেশী হিসেবে হ্যাট্রিক করেন তাসকিন আহমেদ। সেদিন গুণারাত্মে, লাকমাল ও প্রদীপকে আউট করে হ্যাট্রিক পূর্ণ করেন তিনি।

২০০৩ সাল থেকে শুরু করে এ পর্যন্ত টেস্টে দুইজন তথা কাপালি ও সোহাগ গাজী এবং ওয়ানডেতে ৫ জন তথা শাহাদাত হোসাইন, আবদুর রাজ্জাক, রুবেল হোসেন, তাইজুল ইসলামও তাসকিন আহমেদ হ্যাট্রি করেন।