১৯, এপ্রিল, ২০১৮, বৃহস্পতিবার | | ৩ শা'বান ১৪৩৯

বারে ড্যান্স করতে গিয়ে ধর্ষিত কিশোরী

আপডেট: ১২ জানুয়ারী ২০১৮, ০১:০৫ পিএম

বারে ড্যান্স করতে গিয়ে ধর্ষিত কিশোরী
বা়ড়ি দিল্লি।   কাজ করেন কলকাতার বিভিন্ন ডান্স বারে।   কাজের সূত্রেই দিল্লির তরুণী ওই বার ডান্সারের পরিচয় হয়েছিল কাঁচরাপাড়ার যুবক বিনয় চক্রবর্তীর সঙ্গে।   ওই বার ডান্সারকে ধর্ষণের অভিযোগে কসবা থানার পুলিশ বিনয়কে বৃহস্পতিবার গ্রেফতার করেছে।  

পুলিশ সূত্রের খবর, বছর দুয়েক আগে ওই তরুণীর সঙ্গে বিনয়ের পরিচয় হয়েছিল।   ধীরে ধীরে গড়ে ওঠে সম্পর্ক।   এরপর তারা একসঙ্গে থাকত।   দু’বছরের মধ্যে একাধিকবার আস্তানা বদল করেছিল তারা।  
শেষ এক বছর পিকনিক  

 গার্ডেন এলাকার একটি বাড়িতে ওই তরুণীর সঙ্গে ছিল বিনয়।   গত মঙ্গলবার কসবা থানায় বিনয়ের বিরুদ্ধে ধর্ষণের অভিযোগ দায়ের করেন ওই তরুণী।   পুলিশ জানিয়েছে, দু’বছর ধরে ওই তরুণীর কাছ থেকে নানা অছিলায় প্রায় পাঁচ-ছ’লক্ষ হাতিয়ে নেয় বিনয়।  

কলকাতা পুলিশের এক অফিসারের কথায়, ‘‘ডান্স বারে কাজের সূত্রেই ওই তরুণীর সঙ্গে বিনয়ের সম্পর্ক গড়ে উঠেছিল।   তরুণীর অভিযোগের ভিত্তিতে অভিযুক্ত যুবককে গ্রেফতার করা হয়েছে।  ’’

গত সোমবার টাকাপয়সা নিয়ে দু’জনের মধ্যে বচসা হয়।   তারপরই পিকনিক গার্ডেনের বাড়ি থেকে চলে যায় বিনয়।   ওই তরুণী বারবার যোগাযোগের চেষ্টা করেও ব্যর্থ হন।   অভিযুক্ত মোবাইল ফোনে তাঁর নম্বর ‘ব্লক’ করে দেয় বলে অভিযোগ করেন তরুণী।   তাঁর অভিযোগের ভিত্তিতে এদিন সকালে কাঁচরাপাড়ায় বিনয়ের বাড়িতে হানা দেন কসবা থানার তদন্তকারী অফিসারেরা।   সেখান থেকেই গ্রেফতার করা হয় বিনয়কে।   এদিন তাকে আলিপুর আদালতে তোলা হলে বিচারক আগামী ১৬ জানুয়ারি পর্যন্ত পুলিশি হেফাজতের নির্দেশ দিয়েছেন।   স্থানীয় সূত্রের খবর, টাকাপয়সাকে কেন্দ্র করে প্রায় দু’জনের মধ্যে গোলমাল লেগে থাকত।   গত সোমবার বচসা চরমে উঠেছিল।