১৮, জানুয়ারী, ২০১৮, বৃহস্পতিবার | | ১ জমাদিউল আউয়াল ১৪৩৯

নিজের কম্পিউটার নিজেই হ্যাক করে হ্যাকার পেল নতুন ত্রুটির খোঁজ

আপডেট: ০৬ জানুয়ারী ২০১৮, ১২:০৮ পিএম

নিজের কম্পিউটার নিজেই হ্যাক করে হ্যাকার পেল নতুন ত্রুটির খোঁজ

প্রযুক্তি বিশ্বে এখন আলোচনার শীর্ষে আছে ইন্টেল চিপের ডিজাইনে ত্রুটির খবর যা প্রায় সব কম্পিউটারকে ফেলে দিয়েছে নিরাপত্তা ত্রুটির মুখে। নিজের কম্পিউটার নিজেই হ্যাক করে প্রথম এ ত্রুটির খোঁজ পান তথ্য নিরাপত্তা গবেষক ড্যানিয়েল গ্রাস।

৩১ বছর বয়সী এ গবেষক এবং তার সহযোগীরা এই ত্রুটির খোঁজ পাওয়ার আগ পর্যন্ত ভাবতেন প্রসেসরের কার্নেল মেমোরি হ্যাক করা কোনোভাবেই সম্ভব নয়।

‘আমি যখন নিজের তৈরি করা প্রোগ্রাম ব্যবহার করে কার্নেল মেমোরিতে থাকা আমার কিছু ব্যক্তিগত

ওয়েবসাইটের ঠিকানা দেখলাম যা ফায়ারফক্সে সংরক্ষিত ছিল, আমি একেবারে থ হয়ে গিয়েছিলাম’, কীভাবে কম্পিউটারে সংরক্ষিত অতিগোপনীয় তথ্য হ্যাক করলেন সে সম্পর্কে সংবাদমাধ্যম রয়টার্সকে দেওয়া এক সাক্ষাৎকারে এ কথা বলেন ড্যানিয়েল।

গত বছরের ডিসেম্বরের প্রথমভাগে ইন্টেল চিপের এ ত্রুটির খোঁজ পান তিনি। ‘প্রাপ্ত ফলাফল ভুল হওয়ার সব সম্ভাবনা দূর হওয়ার আগ পর্যন্ত কয়েক ঘণ্টা তো আমাদের বিশ্বাসই হচ্ছিলো না যে এতো বড় ত্রুটি চিপের মধ্যে আছে’, বলছিলেন এ গবেষক। এরপর নিজের এবং অন্য সহকর্মীদের ফলাফল মিলিয়ে নিশ্চিত হন যে বিশ্বের কয়েক কোটি কম্পিউটার বড় ধরনের তথ্য নিরাপত্তার ঝুঁকিতে আছে।

গত বুধবার ব্রিটিশ সংবাদমাধ্যম দ্য রেজিস্টার প্রথম এ ত্রুটির খবর প্রকাশ করে। এ প্রতিবেদনে বলা হয়, ১৯৯৫ সাল থেকে ইন্টেলের তৈরি করা সিংহভাগ প্রসেসরেই ‘মেল্টডাউন’ নামের এ ত্রুটি রয়েছে।

পৃথকভাবে ‘স্পেক্টর’ নামের আরও একটি ত্রুটির খোঁজ মিলেছে। এ ত্রুটির ফলে শুধু ইন্টেল নয়, ঝুঁকিতে আছে এএমডি এবং এআরএম চিপে তৈরি কম্পিউটার ও মোবাইল ডিভাইস।

দুটি ত্রুটির কারণেই সাধারণ ব্যবহারকারীদের অতিগোপনীয় তথ্য যেমন- ইউজারনেম, পাসওয়ার্ড হ্যাকারদের হাতে চলে যেতে পারে। মজার ব্যাপার হলো ডেস্কটপ, ল্যাপটপ, স্মার্টফোন ব্যবহারকারীদের পাশাপাশি ক্লাউড স্টোরেজ ব্যবহারকারীরাও আছেন সমান ঝুঁকিতে।