ছাত্রাী নুসরাতকে পুড়িয়ে হত্যার চেষ্টাকারীদের দৃষ্টান্তমূলক শাস্তির দাবীতে মানববন্ধন

ফেনীর সোনাগাজীতে আলিম পরীক্ষার্থী নুসরাত জাহান রাফির উপর হামলাকারী আগুন সন্ত্রাসীদের দৃষ্টান্তমূলক শাস্তির দাবীতে ফুঁসে উঠেছে বিভিন্ন নারী সংগঠন ও সুশীল সমাজ।

এ দাবীর প্রেক্ষিতে কর্মজীবী নারী ফেনী জেলা শাখার আয়োজনে মঙ্গলবার (৯ এপ্রিল) শহরের ট্রাংক রোডস্থ শহীদ মিনার চত্বরে মানববন্ধন ও প্রতিবাদ সমাবেশ অনুষ্ঠিত হয়।

কর্মজীবী নারী ফেনী জেলা সমন্বয়ক ও ছাগলনাইয়ার শুভপুর ইউনিয়ন পরিষদের সদস্য মোসাম্মৎ ছালেহা বেগমের সভাপতিত্বে মানববন্ধন শেষে প্রতিবাদ সমাবেশে প্রধান অতিথির বক্তব্য রাখেন- কর্মজীবী নারী চট্টগ্রাম বিভাগীয় দায়িত্বপ্রাপ্ত নেত্রী রোকেয়া সুলতানা আঞ্জু। বক্তব্য রাখেন- কর্মজীবী নারী ছাগলনাইয়া উপজেলা সাধারণ সম্পাদক মাহমুদা আক্তার, পরশুরাম উপজেলা কর্মজীবী নারীর আহ্বায়ক রোকসানা আক্তার রুমী।

এছাড়াও মানববন্ধনে সংহতি প্রকাশ করে বক্তব্য রাখেন- ফেনী জেলা জাসদের ভারপ্রাপ্ত সভাপতি কাজী আবদুল বারী, ফেনী প্রেস ক্লাবের সাবেক সভাপতি রবিউল হক রবিসহ সাংবাদিক ও সুশীল সমাজের নেতৃবন্দ।

সংহতি প্রকাশ করে অন্যান্যের মাঝে মানববন্ধনে ফেনী জেলা জাসদের সহ-সভাপতি আবুল খায়ের, কোষাধ্যক্ষ মো. জাফর ইমাম, দপ্তর সম্পাদক শিপন হাজারী, সংখ্যালঘু বিষয়ক সম্পাদক বিনোদ বিহারী বিশ্বাস ভানু, কর্মজীবী নারী সদস্যরা ও সর্বস্তরের সুশীল সমাজের নেতৃবৃন্দ উপস্থিত ছিলেন।

মানববন্ধনে বক্তারা- দগ্ধ মাদ্রাসা ছাত্রীর চিকিৎসার দায়িত্ব নেওয়ায় প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনাকে ধন্যবাদ জানিয়ে ফেনী জেলা কর্মজীবী নারী সংগঠন এবং লোমহর্ষক ও বীভৎস ঘটনার সঙ্গে জড়িতদের বিরুদ্ধে দৃষ্টান্তমূলক শাস্তির দাবি জানান।

প্রসঙ্গত, গত ৬ এপ্রিল শনিবার সকাল সাড়ে ৯টার দিকে সোনাগাজী ইসলামিয়া সিনিয়র ফাজিল মাদ্রাসা কেন্দ্রে আলিম পরীক্ষা দিতে গেলে ওই ছাত্রীর গায়ে আগুন ধরিয়ে হত্যা চেষ্টা করা হয়। এ ঘটনায় আটজনের নাম উল্লেখ করে মামলা দায়ের করা হয়েছে।

এরা হলেন- মাদ্রাসার অধ্যক্ষ মাওলানা সিরাজ উদদৌলা, পৌর কাউন্সিলর মাকসুদুল আলম, প্রভাষক আবছার উদ্দিন, মাদ্রাসা শাখা ছাত্রলীগের সভাপতি শাহাদাত হোসেন শামীম, মাদ্রাসার সাবেক ছাত্র নুর উদ্দিন, জাবেদ হোসেন, জোবায়ের আহম্মদ ও হাফেজ আবদুল কাদের।

এর আগে গত ২৭ মার্চ বুধবার ওই ছাত্রীকে সোনাগাজী ইসলামিয়া ফাজিল মাদ্রাসার নিজ কক্ষে ডেকে নিয়ে শ্লীলতাহানি করেন অধ্যক্ষ মাওলানা সিরাজ উদদৌলা। ওই ঘটনায় শিক্ষার্থীর পরিবারের দায়ের করা মামলায় অধ্যক্ষ বর্তমানে কারাগারে রয়েছেন।

বার্তা বাজার .কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।
এই বিভাগের আরো খবর