মুরাদনগরে মিমাংসার জন্য ডেকে নিয়ে তিনজনকে কুপিয়ে জখম

কুমিল্লার মুরাদনগরে ঝগড়া মিমাংসার নাম করে বাড়ীতে ডেকে নিয়ে পূর্বপরিকল্পিত ভাবে ৩ জনকে কুপিয়ে গুরুত্বর জখম করার ঘটনা ঘটেছে। আহত ৩ জনকে গুরুত্বর অবস্থায় মুরাদনগর স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি করানো হয়। শনিবার (২১ সেপ্টেম্বর) রাতে মুরাদনগর সদর ইউনিয়নের ধনীরামপুর গ্রামে এ ঘটনা ঘটে।

আহত ৩ জন হলেন, ধনীরামপুর গ্রামের আব্দুর রহিম সরকারের ছেলে সবির আহম্মেদ(৩৬), সাধন সরকারের ছেলে জামাল মিয়া(৩২) ও আবুল কাশেমের ছেলে বশির আহম্মদ(২৭)।

জানা যায়, শনিবার সন্ধ্যায় ধনীরামপুর গ্রামের মৃত মালু মিয়ার ছেলে রমজান তুচ্ছ ঘটনাকে কেন্দ্র করে একই গ্রামের মোমেন মিয়ার ছেলে সামিকে মারধর করে। পরে রাত ৭টার দিকে রমজানের মা জোহরা খাতুন সামির চাচা জামাল মিয়াকে মোবাইল ফোনে বলেন আমার ছেলে যে কাজটি করেছে তা খুব অন্যায় করেছে। তুমি সামিকে নিয়ে আমার বাড়ীতে আসো আমি আমার ছেলে রমজানের সাথে মিমাংসা করে দিবো। জোহরা খাতুনের কথা বিশ্বাস করে সামির চাচা জামাল মিয়া ও সবির আহম্মেদসহ ৪ জন রমজানের বাড়ীতে যায়। তারা রমজানের ঘরে ঢুকার সাথে সাথেই দরজা বন্ধ করে রমজান ছোট ভাই উসমান বোন খুসু আক্তার ও তার মা জোহরা বেগম রামদা ও তাসকাল দিয়ে জামাল মিয়া, সবির ও বশির আহম্মদকে এলোপাথারী কুপিয়ে জখম করে। এসময় ছবিরের বাবাকে বাচাতে গিয়ে সবির অতিরিক্ত জখমের শিকার হয়। খবর পেয়ে স্থানীরা ঘরের দরজা ভেঙ্গে তাদেরকে উদ্ধার করে মুরাদনগর উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি করে।

মুরাদনগর থানার অফিসার ইনচার্জ একেএম মনজুর আলম বলেন, এ ঘটনায় থানায় মামলার প্রস্ততি চলছে।
ঘটনার খবর পেয়ে আহতদের দেখতে তাৎক্ষণিক হাসপাতালে আসেন কুমিল্লা-৩ মুরাদনগর আসনের জতীয় সংসদ সদস্য ইউসুফ আব্দুল্লাহ হারুন এফসিএ।

বার্তাবাজার/কে.জে.পি

বার্তা বাজার .কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।
এই বিভাগের আরো খবর