২৩, অক্টোবর, ২০১৮, মঙ্গলবার | | ১২ সফর ১৪৪০

গৃহ শিক্ষকের হাত ধরে স্কুলছাত্রী উধাও, অত:পর….

আপডেট: অক্টোবর ৭, ২০১৮

গৃহ শিক্ষকের হাত ধরে স্কুলছাত্রী উধাও, অত:পর….

কুমিল্লার চৌদ্দগ্রামে মো. আমিন নামে এক গৃহ শিক্ষকের সাথে ষষ্ঠ শ্রেণীর ছাত্রী উধাও হওয়ার খবর পাওয়া গেছে। জানা যায়, গৃহ শিক্ষক আমিন পার্শ্ববর্তী শুভপুর ইউনিয়ন এর বল্লা চৌঁ গ্রামের আব্দুল মান্নানের ছেলে। ছাত্রীর নাম মোসা. কহিনূর আক্তার। সে উপজেলার শ্রীপুর ইউনিয়নের মান্দারিয়া গ্রামের দক্ষিণ পাড়ার মো. আবুল কালাম এর একমাত্র মেয়ে এবং দূর্গাপুর উচ্চ বিদ্যালয়ের ষষ্ঠ শ্রেণীর ছাত্রী।

স্থানীয় সূত্রে জানা যায়, দীর্ঘদিন ধরে গৃহ শিক্ষক হিসেবে কহিনূরকে পড়িয়ে আসছিল আমিন। সে সুবাধে তাদের মধ্যে প্রেমের সম্পর্ক গড়ে উঠে। অবশ্য, এতে কহিনূর এর মা ছালেহা বেগমের সম্পূর্ণ সায় ছিল। এদিকে আমিন-কহিনূর এর প্রেম কাহিনী এলাকায় জানাজানি হলে আমিনের বাবা মো. আব্দুল মান্নান বাঁধ সাজেন। তিনি এই সম্পর্কটি মেনে নেননি।

যার কারণে, গত বৃহস্পতিবার (৪ অক্টোবর) সকালে বিদ্যালয়ে যাওয়ার কথা বলে আমিন এর হাত ধরে পালিয়ে যায় কহিনূর। শিক্ষকের হাত ধরে ছাত্রী পলায়নের ঘটনায় এলাকায় চাঞ্চল্যের সৃষ্টি হয়েছে। শেষ খবর পাওয়া পর্যন্ত প্রেমিক যুগল কুমিল্লার কোন আবাসিক হোটেলে অবস্থান করছে বলে জানা যায়।

এ বিষয়ে স্কুল ছাত্রী কহিনূর আক্তারের ভাই বলেন, বিষয়টি আমাদের পারিবারিক ঘটনা। মূলত তাদের বিয়ে ঠিক হয়েছিল। মো. আমিনের পিতা এই বিয়েতে রাজি হয়নি। পরবর্তীতে কহিনুর স্কুলে গিয়ে আর ফিরে নি। লোক মুখে শুনছি আমার বোনকে নিয়ে আমিন পালিয়ে গেছে। কিছু কুচক্রী মহল আমাদের পরিবার সামাজিক ভাবে হেয় করার জন্য সাংবাদিকদের এই তথ্য জানানো হয়েছে। এ বিষয়ে পারিবারিক ভাবে এখনও কোন সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়নি।

এ বিষয়ে শ্রীপুর ইউনিয়নের চেয়ারম্যান শাহ জালাল মজুমদার বলেন, এই ধরণের তথ্য এখনও আমি পাইনি। হয়তো সামাজিক মর্যদার ভয়ে আমাকে জানানো হয়নি। আমি খোঁজ খবর নিয়ে বিষয়টি দেখছি।