১৪, ডিসেম্বর, ২০১৮, শুক্রবার | | ৫ রবিউস সানি ১৪৪০

রাবি ছাত্রলীগ নেতাদের বিরুদ্ধে শিক্ষার্থীকে মারধরে অভিযোগ

আপডেট: ডিসেম্বর ৬, ২০১৮

রাবি ছাত্রলীগ নেতাদের বিরুদ্ধে শিক্ষার্থীকে মারধরে অভিযোগ

রাবি প্রতিনিধি: রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয়ের (রাবি) এক শিক্ষার্থীকে মারধর করে মাথা ফাটানোর অভিযোগ পাওয়া গেছে শাখা ছাত্রলীগের নেতাকর্মীদের বিরুদ্ধে। বুধবার রাত সাড়ে ১০টার দিকে বিশ্ববিদ্যালয়ের শহীদ শামসুজ্জোহা হলের অতিথি কক্ষে মারধরের এ ঘটনা ঘটে।

মারধরের শিকার শিক্ষার্থী তারিক হাসান হিসাববিজ্ঞান ও তথ্যব্যবস্থাপনা বিভাগের দ্বিতীয় বর্ষের শিক্ষার্থী এবং ওই হলের আবাসিক ছাত্র। বর্তমানে সে রাজশাহী মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের (রামেক) ৮ নম্বর ওয়ার্ডে ভর্তি রয়েছেন। অন্যদিকে অভিযুক্তরা হলেন, শাখা ছাত্রলীগের সহ-সভাপতি গুফরান গাজী এবং সহ-সম্পাদক অনিক খন্দকার।

প্রত্যক্ষদর্শী সূত্রে জানা যায়, হিসাববিজ্ঞান ও তথ্যব্যবস্থাপনা বিভাগের প্রথম বর্ষে শিক্ষার্থী ইমামুলের সাথে টাকা ধার দেয়া নিয়ে কথা কাটাকাটি থেকে হাতাহাতি হয় তারিক হাসানের। পরে ইমামুল বিষয়টি জোহা হল শাখা ছাত্রলীগের দায়িত্বপ্রাপ্ত নেতা ও রাবি শাখা ছাত্রলীগের সহ-সভাপতি গুফরান গাজীকে জানায়। পরে গুফরান গাজীসহ কয়েকজন নেতাকর্মী মিলে তারিককে বেধড়ক মারধর করে। মারধরের এক পর্যায়ে মোবাইল দিয়ে তারিকের মাথায় আঘাত করে গুফরান গাজী। এতে তারিকের মাথা ফেটে যায়।

তবে মারধরের বিষয়টি অস্বীকার করে ছাত্রলীগ নেতা গুফরান গাজী বলেন বলেন, আমি মারধর করিনি। তারা একই বিভাগের দুইজন মারপিট করেছে। এতে একজনের মাথা ফেটে গেছে।’

হল প্রাধ্যক্ষ জুলকার নায়েন বলেন, ‘হলে মারধরের ঘটনার কথা শুনেছি। তবে বিষয়টি এখনো পুরোপুরি নিশ্চিত না। বিষয়টি তদন্ত করে দোষীদের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে।’