২০, নভেম্বর, ২০১৮, মঙ্গলবার | | ১১ রবিউল আউয়াল ১৪৪০

ভিজিএফ চাল ৩-৪ কেজি কম দিচ্ছে ইউপি চেয়ারম্যান

আপডেট: আগস্ট ২০, ২০১৮

ভিজিএফ চাল ৩-৪ কেজি কম দিচ্ছে ইউপি চেয়ারম্যান

শরীয়তপুরে প্রতিটি ইউনিয়নে সোমবার সকাল থেকে ভিজিএফ চাল বিতরণ শুরু হয়েছে। কিন্তু ভিজিএফর এই চাল ওজনে কম দেয়ায় অভিযোগ উঠেছে গোসাইরহাট উপজেলার সামন্তসার ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান আবুল কালাম বেপারীর বিরুদ্ধে।

স্থানীয়দের অভিযোগ, হতদরিদ্রদের মাঝে ভিজিএফ চাল বিতরণের সময় জন প্রতি ৩-৪ কেজি চাল কম দেয়া হচ্ছিল। ভিজিএফ চাল পাওয়া কয়েকজন ডিজিটাল পালা দিয়ে মেপে সংবাদকর্মীদেরকে দেখান।

স্থানীয় লোকজন ও প্রকল্প বাস্তবায়ন কর্মকর্তা সূত্র জানায়, কোরবানির ঈদকে সামনে রেখে সরকারের খাদ্য সহায়তা কর্মসূচির আওয়াতায় হতদরিদ্র ও দুস্থ পরিবারের মাঝে উপজেলার সামন্তসার ইউনিয়ন পরিষদে ৫৪৬ জনের নামে ভিজিএফ কার্ড দেয়া হয়। ওই কার্ডের বিপরীতে জন প্রতি ২০ কেজি চাল করে মোট ১০ দশমিক ৯২০ মে. টন ভিজিএফ চাল বরাদ্দ দেয় জেলা ত্রাণ ও পুনর্বাসন বিভাগ। সোমবার ইউনিয়ন পরিষদে ভিজিএফ ওই চাল বিতরণ শুরু করেন চেয়ারম্যান আবুল কালাম বেপারী। তবে বিতরণে সময় তিনি জন প্রতি ৩-৪ কেজি চাল ওজনে কম দেয়ায় স্থানীয়রা এর প্রতিবাদ করেন। এতে কোনো কাজ না হওয়ায় স্থানীয়রা উপজেলা প্রশাসনকে জানায়। শুধু তাই নয় ট্যাগ কর্মকর্তার (উপজেলা সহকারী প্রাথমিক শিক্ষা কর্মকর্তা) অনুপস্থিতিতে চাল বিতরণ করছেন চেয়ারম্যান।

অভিযোগের বিষয়ে সামন্তসার ইউনিয়ন পরিষদ চেয়ারম্যান আবুল কালম বেপারী জানান, পরিষদের লোকজন বালতি করে জন প্রতি ২০ কেজি করে চাল দিচ্ছে। এতে ওজনে কারো ভাগে বেশি ও কারো ভাগে কিছুটা কম যেতেই পারে।

চাল পাওয়া সামন্তসার ইউনিয়নের ৬নং ওয়ার্ডের উজ্জ্বল তপাদার, ১নং ওয়ার্ডের নাসির বাসিন্দা উদ্দিন মাদবর বলেন, আমাদের ২০ কেজি চাল দেয়ার কথা। অথচ ওজন মেপে দেখি এতে ৩-৪ কেজি করে চাল কম রয়েছে। চেয়ারম্যান এভাবে সবাইকে কম দিচ্ছেন।

এ বিষয়ে উপজেলা প্রকল্প বাস্তবায়ন কর্মকর্তা তাহমিনা আক্তার চৌধুরী বলেন, বিষয়টি আমি শুনেছি। আপনারা উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা স্যারের সঙ্গে কথা বলেন।

উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা আর এম সেলিম শাহনেওয়াজ বলেন, ব্যাপারটি আমি দেখছি। অভিযোগ পেলে ব্যবস্থা নেয়া হবে।