২১, নভেম্বর, ২০১৮, বুধবার | | ১২ রবিউল আউয়াল ১৪৪০

রাজশাহীতে ঈদের প্রধান জামাত শাহ মখদুম ঈদগাহে

আপডেট: আগস্ট ২০, ২০১৮

রাজশাহীতে ঈদের প্রধান জামাত শাহ মখদুম ঈদগাহে

রাজশাহীতে প্রধান ঈদের জামাত ঐতিহ্যবাহী শাহ্ মখদুম (রহ:) কেন্দ্রীয় ঈদগাহে অনুষ্ঠিত হবে। ঈদের দিন সকাল ৮টায় এই জামাত অনুষ্ঠিত হবে। ঈদুল আজহার এ জামাতে বরাবরের মত ইমামতি করবেন হযরত শাহ্ মখদুম (রহ.) জামিয়া ইসলামীয়া মাদরাসার অধ্যক্ষ মুফতি শাহাদাৎ আলী। তবে বৈরি আবহাওয়া বিরাজ করলে একই সময়ে হযরত শাহ্ মখদুম (রহ:) দরগা মসজিদে একাধিক ঈদের নামাজ অনুষ্ঠিত হবে।

সোমবারা ইসলামিক ফাউন্ডেশনের রাজশাহী বিভাগের ভারপ্রাপ্ত পরিচালক একেএম মনিরুল ইসলাম এ তথ্য নিশ্চিত করেছেন। তিনি বলেন, প্রধান ঈদ জামাত আয়োজনের প্রস্তুতি প্রায় শেষ। এ নিয়ে জেলা প্রশাসকের দফতরে বিশেষ সভা হয়েছে। ওই সভায় সভাপতিত্ব করেন জেলা প্রশাসক এসএম আবদুল কাদের। সেখানে যথাযোগ্য মর্যাদা ও ভাবগাম্ভীর্যের সঙ্গে পবিত্র ঈদুল আজহা উদযাপনে সরকারি বিভিন্ন কর্মসূচি নেয়ার সিদ্ধান্ত হয়।

তিনি আরও বলেন, ঈদ জামাত ঘিরে অপ্রীতিকর ঘটনা এড়াতে আইনশৃংখলা বাহিনী পর্যাপ্ত নিরাপত্তা নেবে। বিশেষ করে জঙ্গিবাদ ও উষ্কানিমূলক কার্যকলাপ যাতে না হয় সে বিষয়ে সতর্ক দৃষ্টি রাখা হবে।

রাজশাহী নগরী ও জেলার বিভিন্ন উপজেলায় ঈদ জামাত আয়োজনের প্রসঙ্গে বিভাগীয় পরিচালক বলেন, এবার ঈদ জামাত আয়োজনে তাদের কোনো বাধ্যবাধকতা নেই। তবে রাজশাহী নগরীতে সিটি কর্পোরেশনের সঙ্গে যৌথভাবে ২৫টি ঈদ জামাত আয়োজন করা হবে। এ সব জামাত বেশিরভাগই শেষ হবে সকাল সাড়ে ৮টার মধ্যে। উপজেলা পর্যায়েও ওই সময়ের মধ্যেই ঈদ জামাত শেষ করার সিদ্ধান্ত নেয়া হয়েছে।

রাজশাহী সিটি কর্পোরেশন, ইসলামিক ফাউন্ডেশন ও রাজশাহী শাহ মখদুম দরগা ট্রাস্ট এবং স্থানীয় সূত্রে পাওয়া তথ্য অনুযায়ী, নগরীতে প্রথম দুটি ঈদ জামাত অনুষ্ঠিত হবে সকাল ৭টায়। নগরীর আমচত্তর আহলে হাদীস মাঠ এবং রাজশাহী প্রকৌশল ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয় মাঠে এ দুটি ঈদ জামাত অনুষ্ঠিত হবে।

সকাল সাড়ে ৭টায় যেসব জামাত হবে

উপশহর কেন্দ্রীয় জামে মসজিদ, বড়বনগ্রাম আলফারুক জামে মসজিদ, শালবাগান গণপূর্ত মাঠ, বিনোদপুর আহলে হাদিস জামে মসজিদ এবং মেহেরচন্ডি নতুনপাড়া ঈদগা। এ ছাড়া বালিয়াপুকুর জামে মসজিদে ঈদ জামাত পৌনে ৮টায় অনুষ্ঠিত হবে।

সকাল ৮টার দিকে যেসব জামাত অনুষ্ঠিত হবে

সাহেব বাজার বড় রাস্তা, টিকাপাড়ায় মহানগর ঈদগাহ, হাজী লাল মুহাম্মদ ঈদগাহ, রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয় কেন্দ্রীয় ঈদগাহ, লোকনাথ স্কুল মাঠ, পাঁচানী ঈদগাহ, ডাঁশমারি পূর্বপাড়া ঈদগাহ, ডাঁশমারি বাইতুল মারেফত মাঠ, সাতবাড়িয়া ঈদগাহ, মেহেরচন্ডি ঈদগাহ, মির্জাপুর ঈদগাহ, মির্জাপুর পশ্চিমপাড়া জামে মসজিদ, বুলনপুর ঈদগা, মসজিদ-ই-নূর ঈদগাহ, কয়েরদাড়া ঈদগাহ, মদিনাতুল উলুম কামিল মাদরাসা, ডিঙ্গাডোবা ঈদগাহ মাঠ, কাশিয়াডাঙ্গা সিটি গেইট ঈদগাহ, কাশিয়াডাঙ্গা ঈদগাহ, মির্জাপুর পূর্ব পাড়া ঈদগাহ, ফিরোজাবাদ ঈদগাহ।

সকাল সোয়া ৮টায় জামাত, বিভাগীয় স্টেডিয়াম (তেরখাদিয়া) ঈদগাহ, শিরোইল সরকারি হাই স্কুল ঈদগাহ, মালদা কলোনী ঈদগাহ এবং রামচন্দ্রপুর মহলদার পাড়া ঈদগাহ।

সবশেষে সকাল সাড়ে ৮টার জামাত হবে

রাজশাহী জজ কোর্ট ঈদগাহ, লক্ষ্মীপুর ভাটাপাড়া ঈদগাহ, রায়পাড়া বসরী ঈদগাহ, কাঁঠালবাড়ীয়া ঈদগাহ, রায়পাড়া ঈদগাহ, রাজশাহী কোর্ট স্টেশন ঈদগাহ, মোল্লাপাড়া ঈদগাহ, লক্ষ্মীপুর ভাটাপাড়া ঈদগাহ মাঠ, কোর্ট বুলনপুর ঈদগাহ মাঠ, খোজাপুর গোরস্থান ঈদগাহ মাঠ, জাহাজঘাট মোড় ঈদগাহ মাঠ, খোজাপুর ১নং ঈদগাহ, শহীদবাগ জামে মসজিদ এবং ধরমপুর মধ্যপাড়া ঈদগাহ। উপশহর কেন্দ্রীয় জামে মসজিদ ঈদগাহ, চৌদ্দপাই মোড় ঈদগাহ, খাদেমুল ইসলাম স্কুল অ্যান্ড কলেজ এবং তালাইমারী বাজার ঈদগাহ।

এ দিকে বাঘাও ঐতিহাসিক শাহী মসজিদ কেন্দ্রীয় ঈদগাহ ময়দানে প্রধান ঈদের জামাত সকাল ৮টায় অনুষ্ঠিত হবে। জেলার মোহনপুর ঈদগাহ মাঠে ৮টায় ঈদের জামাত অনুষ্ঠিত হবে। বৈরী আবহাওয়া বিরাজ করলে এ ক্ষেত্রে স্থানীয় মসজিদ সমূহে ঈদের জামাত অনুষ্ঠিত হবে। এক্ষেত্রে কোথাও কোথা আবার একাধিক জামাত হতে পারে বলে স্থানীয় একাধিক সূত্রে জানা গেছে।