১৮, অক্টোবর, ২০১৮, বৃহস্পতিবার | | ৭ সফর ১৪৪০

আগামী ৪-৬ অক্টোবর জাতীয় উন্নয়ন মেলা

আপডেট: আগস্ট ১২, ২০১৮

আগামী ৪-৬ অক্টোবর জাতীয় উন্নয়ন মেলা

দেশের সব জেলা ও উপজেলা পর্যায়ে একযোগে জাতীয় উন্নয়ন মেলা অনুষ্ঠিত হবে ৪ থেকে ৬ অক্টোবর। চতুর্থবারের মতো তিন দিনব্যাপী এই মেলার আয়োজন করা হচ্ছে।

প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা এই মেলার উদ্বোধন করবেন।

বিদেশে বাংলাদেশের দূতাবাসগুলোতে একই সময়ে উন্নয়ন মেলা আয়োজন করা হবে তবে সেখানে মেলা হবে তিনদিনের পরিবর্তে একদিন।

সম্প্রতি প্রধানমন্ত্রীর কার্যালয়ে অনুষ্ঠিত এ সংক্রান্ত এক সভায় এই সিদ্ধান্ত নেয়া হয়েছে। সভার কার্যপত্র থেকে এই তথ্য জানা গেছে। প্রধানমন্ত্রীর টেকসই উন্নয়ন লক্ষ্যমাত্রা (এসডিজি) বিষয়ক মুখ্য সমন্বয়ক আবুল কালাম আজাদ ওই সভায় সভাপতিত্ব করেন।

সভায় সিদ্ধান্ত নেয়া হয়, শিক্ষার্থী অভিভাবক, দেশি/বিদেশি পর্যটক, বিনিয়োগকারীসহ প্রান্তিক পর্যায়ের সব স্তরের জনসাধারণকে এই মেলায় সম্পৃক্ত করা হবে। বিশেষ করে ছাত্র এবং তরুণদের মেলায় অংশগ্রহণ নিশ্চিত করা হবে। ছাত্র এবং তরুণদের স্বাধীনতার প্রকৃত ইতিহাস জানাতে হবে এবং তাদের বাঙালি জাতীয়তাবাদে উদ্ধুব্ধ করতে হবে যাতে তাদের মধ্যে ইতিহাস বা ধর্ম নিয়ে কোনো বিকৃত বা মিথ্যা ধারণ থাকলে সেটি অপসারিত হয়।

জেলা ও উপজেলা প্রশাসনের সার্বিক আয়োজনে জেলা ও উপজেলার বিভিন্ন সরকারি দফতর/সংস্থা, ব্যাংক, বীমা ও অন্যান্য আর্থিক প্রতিষ্ঠান, সরকারি ও বেসরকারি এনজিও, উন্নয়ন সংস্থা, শিল্প কারখানার মালিক, ব্যবসায়ী ও বেসরকারি প্রতিষ্ঠান নিজ নিজ কর্মকাণ্ড জানাতে মেলায় অংশ নেবে।

মেলায় প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার উল্লেখযোগ্য ১০টি বিশেষ উদ্যোগ এবং প্রধানমন্ত্রীর অর্জিত আন্তর্জাতিক স্বীকৃতি ও সাফল্য সম্পর্কে প্রচারণা চালানো হবে। রূপকল্প-২০২১ ও রূপকল্প-২০৪১ এ উন্নত বাংলাদেশের প্রস্তাবনা সম্পর্কে জনগণকে উদ্ধুদ্ধ করা হবে। একই সঙ্গে সহস্রাব্দ উন্নয়ন লক্ষ্যমাত্রা (এমডিজি) অর্জনে সরকারের সাফল্য এবং টেকসই উন্নয়ন লক্ষ্যমাত্রা (এসডিজি) সম্পর্কে ধারণা দেয়াসহ লক্ষ্য বাস্তবায়নে জনসম্পৃক্ততা বৃদ্ধির বিষয়ে মেলায় জোর দেয়া হবে।

মেলায় সংশ্লিষ্ট জেলার ঐতিহ্য ও পর্যটন সম্ভাবনা তুলে ধরা ছাড়াও প্রত্যেক জেলার একটি অনন্য পণ্য নিয়ে ওই জেলার ব্র্যান্ডিং, নারীর ক্ষমতায়নে সরকারের বিভিন্ন পদক্ষেপ তুলে ধরা হবে।

তথ্য প্রযুক্তি, বঙ্গবন্ধু স্যাটেলাইট, রূপপুর পারমাণবিক বিদ্যুৎকেন্দ্র, পদ্মা সেতু, ঢাকা এক্সপ্রেসওয়ে, কর্ণফুলী টানেল, মেগাপ্রকল্প, অর্থনৈতিক অঞ্চল, হাইটেক পার্ক, সেবাখাত, অবকাঠামো উন্নয়ন ইত্যাদি খাতে বাংলাদেশের উন্নয়ন তুলে ধরা হবে উন্নয়ন মেলায়।

প্রতিটি জেলায় শেখ হাসিনা সরকারের সাফল্য বা উন্নয়ন কার্যক্রমের ওপর ৫ মিনিটের ভিডিও চিত্র নির্মাণ ও প্রদর্শন করা হবে বলেও ওই সভায় সিদ্ধান্ত নেয়া হয়।