১৫, অক্টোবর, ২০১৮, সোমবার | | ৪ সফর ১৪৪০

মালয়েশিয়া প্রিমিয়ার লীগে বাংলাদেশী তরুনের অবিশ্বাস্য সাফল্য!

আপডেট: আগস্ট ৮, ২০১৮

মালয়েশিয়া প্রিমিয়ার লীগে বাংলাদেশী তরুনের অবিশ্বাস্য সাফল্য!

জুবায়ের আহমেদ, বার্তাবাজার নিউজ: বিশ্ব ক্রিকেটে মালয়েশিয়ার অবস্থান খুবই নাজুক, তবে ক্রিকেটের সাথে বেশ সম্পৃক্ততা আছে তাদের। ১৯৯৭ সালে এই মালয়েশিয়াতেই আইসিসি ট্রফি জয় করেছিল টাইগাররা এবং ২০১৮ সালেও প্রমীলা এশিয়া কাপে মালয়েশিয়ায় চ্যাম্পিয়ন হয়েছে বাংলাদেশী টাইগ্রেসরা।

মালয়েশিয়া প্রিমিয়ার লীগে খেলছেন বাংলাদেশ ঘরোয়া ক্রিকেটে নিয়মিত খেলা মাইনুল ইসলাম। ইউনিভার্সিটি কেবাংশন মালয়েশিয়ার হয়ে খেলছেন তিনি। এ দলে পিনাক ঘোষও খেলছেন।

ইতিমধ্যে দুজনেই নিজেদের প্রমাণ করেছেন সেখানে। মাইনুল ইসলাম রীতিমত টুর্নামেন্ট সেরা ক্রিকেটার হওয়ার দৌড়েও আছেন। নিজ দলের হয়ে ৬টি ম্যাচ খেলে তিনবার ৫ এবং একবার ৪ উইকেট শিকার করেছেন ম্যাচে, ৬ ম্যাচে বল হাতে ৫ উইকেট বেস্টে ২১ উইকেট এবং ব্যাট হাতে ৭৫ রান বেস্টে ১৭০ রান করেছেন। পিনাক ঘোষ ধারাবাহিক ভালো খেলতে না পারলেও ৬ ম্যাচে ৪৭ রান বেস্টে ১০০ রান করেছেন।

৫ দলের ওয়ানডে টুর্নামেন্টে ইউনিভার্সিটি কেবাংশন মালয়েশিয়াও সেমিফাইনালে উত্তীর্ণ হয়েছে। আগামী ১১ তারিখ মালয়েশিয়া আমর্ড ফোকাস দলের সাথে ২য় সেমিফাইনালে মুখোমুখি হবে ইউনিভার্সিটি কেবাংশন মালয়েশিয়া। টুর্নামেন্ট সেরা হওয়ার সম্ভাবনা আছে মাইনুল ইসলামের, সেমিফাইনালে দূর্দান্ত পারফর্ম করলে তা একেবারেই নিশ্চিত হয়ে যাবে। কেননা ১৭০ রান করে টুর্নামেন্টে ৮ম সর্বোচ্চ রান সংগ্রাহক হলেও বল হাতে ২১ উইকেট শিকার করে ১ম স্থানে আছেন মাইনুল।

বিদেশের মাটিতে বাংলাদেশী তরুনদের এমন আলো ছড়ানো পারফরম্যান্স খুব কমই দেখা যায়। মাইনুল ৩টি প্রথম শ্রেণীর ম্যাচ খেলার পাশাপাশি ২৯টি লিষ্ট এ ম্যাচ খেলেছেন। সেখানে ব্যাট হাতে ৪৫৩ রান করার পাশাপাশি বল হাতে ২৬ উইকেট শিকার করেছেন। মালয়েশিয়ার ক্রিকেট তুলনামূলক প্রতিদ্বন্ধিতা কম হলেও বিভিন্ন দেশের বেশ কিছু ক্রিকেটারের অংশগ্রহণের ফলে মালয়েশিয়া প্রিমিয়ার লীগটি বেশ সাড়া ফেলেছে।