১৮, ডিসেম্বর, ২০১৮, মঙ্গলবার | | ৯ রবিউস সানি ১৪৪০

দলের তরুণ ক্রিকেটারদের বড় সমস্যা ফেসবুক আসক্তি

আপডেট: আগস্ট ৮, ২০১৮

দলের তরুণ ক্রিকেটারদের বড় সমস্যা ফেসবুক আসক্তি

সদ্য সমাপ্ত ওয়েস্ট ইন্ডিজ সফরে স্বাগতিকদের বিপক্ষে টেস্টে হোয়াইটওয়াশ হলেও ওয়ানডে এবং টি-টোয়েন্টি সিরিজ জিতেছে বাংলাদেশ।

তবে ওয়েস্ট ইন্ডিজ সফরে তরুণ ক্রিকেটারদের পারফরম্যান্স হতাশ করেছে। ইতোমধ্যে তরুণ ক্রিকেটারদের পারফরম্যান্স নিয়ে প্রশ্ন উঠেছে।

বাংলাদেশ দলের তরুণ ক্রিকেটাররা উইন্ডিজ সফরে প্রত্যাশিত ব্যাটিং করতে পারেননি। সফরের ৩ ফরম্যাট মিলিয়ে দলের মোট রানের ৭১ শতাংশই এসেছে চার সিনিয়র ক্রিকেটার সাকিব আল হাসান, তামিম ইকবাল, মাহমুদউল্লাহ ও মুশফিকুর রহিমের ব্যাট থেকে।

দলের পক্ষে দুই সেঞ্চুরির দুটিই তামিমের। এছাড়া ১০ ফিফটির আটটিই চার সিনিয়রের। বিপরীতেতিন ফরম্যাট মিলিয়ে বাংলাদেশ দলের সবচেয়ে সম্ভাবনায় আট তরুণ ব্যাটসম্যান সৌম্য সরকার, লিটন দাস, এনামুল হক, সাব্বির রহমান, মোসাদ্দেক হোসেন, মুমিনুল হক, আরিফুল হক ও নুরুল হাসান মিলে সম্মিলিত অবদান ২৯ ইনিংসে ৩৬৯ রান। তারা মোটে দুটি ফিফটি করেছেন।

বাংলাদেশ জাতীয় ক্রিকেট দলের তরুণদের আত্মনিবেদনে ঘাটতি দেখছেন ঘরোয়া ক্রিকেটের সফল কোচ ও জাতীয় দলের সাবেক অধিনায়ক খালেদ মাসুদ পাইলট।

পাইলট বলেন, ‘দলের সব সিনিয়র ক্রিকেটারই নিজেদের পারফরম্যান্সের প্রতি অবিশ্বাস্য মনোযোগী। তামিম, মুশফিকুর, মাহমুদউল্লাহ ও মাশরাফিকে দেখুন। অনুশীলনে তারাই সবার আগে আসে। নেট বা জিম থেকে তাদের সরানো যায় না। কিন্তু, তরুণ ক্রিকেটারদের নিয়ে আমি এমনটা বলতে পারছি না।’

দলের তরুণ ক্রিকেটাররা মাঠে অনুশীলন না করে ‘ফেসবুক’ নিয়ে ব্যস্ত হয়ে পড়েন। এমনটা জানিয়ে সাবেক এ অধিনায়ক বলেন, ‘তরুণ ক্রিকেটারদের আরেকটা বড় সমস্যা হয়ে উঠেছে সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমে আসক্তি। কেন তারা সবসময় ফেসবুকে পড়ে থাকবে? এ থেকে অবশ্যই বেরিয়ে আসতে হবে।’