রাবি’র সহকারী অধ্যাপকের বিরুদ্ধে ছাত্রীকে যৌন হয়রানির অভিযোগ

রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয়ের (রাবি) শিক্ষা ও গবেষণা ইনস্টিটিউটের সহকারী অধ্যাপক বিষ্ণুকুমার অধিকারীর বিরুদ্ধে যৌন হয়রানির অভিযোগ করেছেন বিভাগের এক ছাত্রী। মঙ্গলবার দুপুরে ওই ছাত্রী ইনস্টিটিউটের পরিচালক এবং বিশ্ববিদ্যালয় প্রশাসন বরাবর লিখিত অভিযোগ জমা দিয়েছেন।

ভুক্তভোগী ছাত্রী অভিযোগপত্রে উল্লেখ করেন, ‘আমি আমার বিভাগের শিক্ষক বিষ্ণুকুমার অধিকারীর দ্বারা বিভিন্নভাবে যৌন হয়রানী ও মানসিকভাবে উত্যক্তের শিকার হই। যার কারণে আমি মানসিকভাবে অনেক বিপর্যস্ত হয়ে পড়েছি। আমি পড়াশুনা এবং অন্য কোনো কাজেই মনযোগ দিতে পারছি না, মেন্টাল ট্রমায় ভুগছি।’

অভিযোগপত্রে তিনি আরও বলেন, ‘কারণে অকারণে স্যার অফিসে ডেকে বসিয়ে রাখেন, ফ্রি মাইন্ডের কথা বলে নানা রকম ইঙ্গিতপূর্ণ ও অশালীন কথাবার্তা বলেন, অন্য নারী শিক্ষকদের ব্যক্তিগত বিষয় নিয়ে অশালীন মন্তব্য করেন, শিক্ষক হওয়ার ক্ষমতা দেখাতেন। তিনি আমাকে প্রায়ই রাত ১১টার পর ফোন করে কথা বলেন।’

অভিযোগের বিষয়ে জানতে চাইলে ভুক্তভোগী বলেন, ‘মানসিকভাবে সহ্য করতে না পেরে অভিযোগ করেছি। আমি চাই না ওই শিক্ষক আমার মতো আর কারও সঙ্গে এমন করুক। এর নায্য বিচার চাই।’

এ বিষয়ে অভিযুক্ত শিক্ষক বিষ্ণুকুমার অধিকারী বলেন, ‘তার অভিযোগের সাথে আমার কোনো সম্পৃক্ততা নেই। আমাকে সামাজিকভাবে হেয় করার জন্য এক শ্রেণি চক্রান্ত করছে। এ অভিযোগ সম্পূর্ণ ভিত্তিহীন ও উদ্দেশ্য প্রণোদিত। এর তীব্র নিন্দা ও প্রতিবাদ জানাচ্ছি।’

ইনস্টিটিউটের পরিচালক অধ্যাপক আবুল হাসান চৌধুরী বলেন, ‘অভিযোগপত্র পেয়েছি। এটা আমাদের অভ্যন্তরীণ বিষয়; সেজন্য আমরা জরুরি মিটিং ডেকেছি।’

বিশ্ববিদ্যালয়ের উপ-উপাচার্য অধ্যাপক আনন্দ কুমার সাহা বলেন, ‘অভিযোগের বিষয়ে আমি জানি না। এখনও অভিযোগপত্র হাতে পাইনি।’

বার্তা বাজার .কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।
এই বিভাগের আরো খবর