২১, নভেম্বর, ২০১৮, বুধবার | | ১২ রবিউল আউয়াল ১৪৪০

স্বপ্নবাজ তরুণ উদ্যোক্তা পাপ্পুর উঠে আসার গল্প

আপডেট: জুলাই ৭, ২০১৮

স্বপ্নবাজ তরুণ উদ্যোক্তা পাপ্পুর উঠে আসার গল্প

নাঈম ইসলাম: তথ্যপ্রযুক্তি খাতে তরুণদের দখল একচেটিয়া।   তরুণদের চৌকস দক্ষতা ও অপরিসীম ধৈর্যে এই তথ্যপ্রযুক্তি প্রতিনিয়ত দূর্দান্ত গতিতে এগিয়ে চলছে।   বিশ্বের বুকে জায়গা করে নিচ্ছে বাংলাদেশ।  পুরস্কার অর্জন করে সমৃদ্ধ হয়েছে দেশ।   দেশের আইটি খাতে ঝুঁকে পড়েছে  তরুণ মেধাবীরা।   প্রতিভাবান তরুণরা অন্য জায়গায় চাকরি করার বদলে নিজেরাই গড়ে তুলেছেন নিজের প্রতিষ্ঠান, আয় করছেন বৈদেশিক মুদ্রা, অনুপ্রেরণা হয়ে আছেন নবীনদের মধ্যে।

ভাগ্য বিধাতা সর্বদাই কর্মঠ আর সাহসীদের পক্ষে থাকেন।   চিরন্তন এই বাণীকে প্রমাণ করে সফলতার সিঁড়িতে অগ্রসর হওয়ার দম্য ইচ্ছাশক্তিতে এগিয়ে চলছে ২২ বছর বয়সী স্বপ্নবাজ  তরুণ ইফতেখার পাপ্পু।  শেরপুর জেলা শহরের কালীগঞ্জের নিজ বাসায় তিনি গড়ে তুলেছেন “বিডি আইটি জোন” প্রতিষ্ঠান।  অক্লান্ত পরিশ্রম ও চৌকস মেধায় গড়ে তোলা এই বিডি আইটি জোন থেকে সফলতার সিঁড়িতে এসেছে এই স্বপ্নবাজ এই  তরুণ উদ্যোক্তা।

২০০৯ সাল থেকে পথচলা শুরু  যেসময়ে সারাক্ষণ ফেসবুকে মেতে থাকার কথা, ঠিক সেসময় পাপ্পু অনলাইনে ডুবেছেন কিভাবে ফেসবুক থেকে মার্কেটিংয়ের মাধ্যমে আয় করা সম্ভব।  ফ্রিল্যান্সিংয়ের উপর ভর করে কিভাবে প্রতিষ্ঠিত হওয়া যায়।  অনলাইনে বিভিন্ন টিউটেরিয়াল ঘেটে ওয়েব-ডিজাইন ও ডেভেলপমেন্ট শেখার চেষ্টা করেছেন।

ইফতেখার পাপ্পু বলেন, “আমি স্বপ্ন দেখতাম সেই দিনের, যেদিন ফেসবুক শুধু সামাজিক যোগাযোগের মাধ্যম হিসেবে নয়, তৃণমূলের তরুণরা এটাকে আয়ের উৎস হিসেবে ব্যবহার করবে।  কিন্তু সময়ের ব্যবধানে ফেসবুকে ব্যবসা করার উপায় যুক্ত করেছে ফেসবুক কর্তৃপক্ষ।  এখন প্রয়োজন শুধু মার্কেটিং করে নিজের স্থান দখলে আনার। ”

তিনি আরো বলেন, যারা উপযুক্ত প্রশিক্ষণের অভাবে আপওয়ার্ক, বিল্যান্সের মত প্রতিষ্ঠানে যুক্ত হতে পারেনি, তাদের উচিৎ ফেসবুকে পর্যাপ্ত মার্কেটিং করা।  আর তাতে করে মাসে ঘরে বসে ১০ হাজার টাকা থেকে ১ লাখ বা তারো বেশি আয় করা সম্ভব।

ইফতেখার পাপ্পু তার আইটি প্রতিষ্ঠান বিডি আইটি জোনের মাধ্যমে তার ঘরে বসেই দিয়ে যাচ্ছেন আইটি সেবা।  স্বপ্ন দেখছেন তথ্য প্রযুক্তিতে সমৃদ্ধ বাংলাদেশ গড়ার।  বর্তমানে তিনি বিডি আইটি ২৪/৭ এবং বিডিআইটি জোন একসাথে মিলিত হয়ে বাংলাদেশসহ বিশ্বের বিভিন্ন দেশে আইটি সেবা দিবেন।  এজন্য তিনি  বিডি আইটি জোন এবং বিডি আইটি ২৪/৭ নামের দুটি প্রতিষ্ঠান গড়ে তুলেছেন।   ২০১৪ সাল থেকে বিডি আইটি জোনের মাধ্যমে ওয়েব সাইট ডেভেলপিং এর পাশা-পাশি ডোমেইন হোষ্টিং সহ বিভিন্ন আইটি সেবা এবং ২০১৭ থেকে বিডি আইটি ২৪/৭ এর মাধ্যমে এপ্স ডেভেলপিং এর কাজ শুরু করেন।

বিডি আইটি জোনের সেবা সম্পর্কে এর প্রধান নির্বাহী ইফতেখার পাপ্পু বলেন, আমরা এ প্রতিষ্ঠানের মাধ্যমে বাংলাদেশে ডোমেইন, হোস্টিং সেবা, ওয়েব ডিজাইন ও ডেভেলপিং, মুঠো টিভি ও রেডিও তৈরী, মোবাইল অ্যাপস তৈরী, বাল্ক এসএমএস ও আইপি ফোন সেবা দিয়ে আসছি।  স্বল্পমূল্যে এসব সেবার পাশাপাশি এ প্রতিষ্ঠান যেকোন প্রতিষ্ঠানের ওয়েবসাইট রিডিজাইন ও আইটি সল্যুশনের কাজ করে যাচ্ছে।

এ স্বল্প সময়ে বিভিন্ন সেবার মাধ্যমে বিডি আইটি জোনের ভালো সাড়া প্রযুক্তিপ্রেমী ও গ্রাহকদের মাঝে।  নিজের ব্যবসা দিনের পর দিন উন্নতির জন্য নিরলস কাজ করে যাচ্ছে বিডি আইটি জোনের প্রধান নির্বাহী ইফতেখার পাপ্পু ও তার বিডি আইটি টিমের এক ঝাঁক স্বপ্নবাজ  তরুণউদ্যোক্তা।