রাজধানীতে মদ পান করে পুলিশের এএসপির মাতলামি

রাজধানীতে মদ পান করে সচিবালয়ের গেটে পড়ে ছিলেন মশিয়ুর রহমান নামে পুলিশের এক এএসপি। রোববার (১০ মে) দিবাগত রাতে শাহবাগ থানার পুলিশ তাকে উদ্ধার করে চিকিৎসার জন্য ঢাকা মেডিকেল কলেজ হাসপাতলে নিয়ে যায়।

এসময় পুলিশের ওই এএসপি অতিরিক্ত মদপান করে মাতলামি করছিল। পড়নের প্যান্ট ও টিশার্ট খুলে চিৎকার করে বলছিল ‘‘পুলিশগুলো আমাকে এভাবে ধরে রেখেছে কেন? তারা আমাকে ঘিরে রেখেছে। আমাকে যেতে দিচ্ছে না। এটা আমার হল । এটা শহীদুল্লাহ হল। এখানে আমার ছোট ভাই ব্রাদাররা থাকে। আমাকে ছেড়ে দাও বলছি। তোমাদের পরিণতি ভালো হবে না।’

জানা যায়, রোববার (১০ মে) দিবাগত রাতে শাহবাগ থানায় খবর আসে সচিবালয়ের এক নম্বর গেটের সামনে রাস্তায় একজন পুলিশ অফিসার সিভিলে রাস্তায় পড়ে আছেন। খবর পেয়ে ডিউটিরত এসআই পলাশ সহকর্মীদের নিয়ে দ্রুত ঘটঁনাস্থলে যেয়ে সেখানে মদ্যপ ও বেপরোয়া অবস্থায় তাকে উদ্ধার করে চিকিৎসার জন্য ঢাকা মেডিকেলে নিয়ে যান। স্টোমাক ওয়াশের কথা শুনে এক পর্যায়ে এএসপি হাসপাতাল থেকে পালিয়েও যেতে চাচ্ছিলেন।

এ বিষয়ে শাহবাগ থানার এসআই পলাশ জানান, ওসি সাহেব বলেছেন, স্যারের ছোট ভাইয়েরা আসলে তাদের হাতে তুলে দিতে। সে অনুযায়ী তাকে ছাত্রদের হাতে ন্যস্ত করা হয়েছে।

এ ব্যাপারে শাহবাগ থানার ওসি আবুল হাসান ঘটনার সত্যতা স্বীকার করে বলেন, এ পুলিশ অফিসার বিসিএস ক্যাডারের একজন এএসপি। এরআগেও একাধিকবার মদ খেয়ে শাহবাগ মোড়ে বেপরোয়া হয়ে অপ্রীতিকর ঘটনা ঘটিয়েছেন। সে ঘটনায় সংশ্লিষ্ট এএসপিকে বরখাস্ত করা হয়েছে। তা ছাড়া তার বিরুদ্ধে একাধিক অনৈতিক ঘটনার তদন্ত চলমান রয়েছে। তার বিষয়টি নতুন কিছু নয়।

বার্তাবাজার/এসজে

বার্তা বাজার .কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।
এই বিভাগের আরো খবর