২১, নভেম্বর, ২০১৮, বুধবার | | ১২ রবিউল আউয়াল ১৪৪০

বাড়ি ফাঁকা হলেই আসতেন একাধিক নারী

আপডেট: জুন ১৪, ২০১৮

বাড়ি ফাঁকা হলেই আসতেন একাধিক নারী

আরমান কোহলির বিরুদ্ধে মামলা কি তুলে নেবেন? না, আরমানকে ক্ষমা করে দেবেন? এমন প্রশ্নের উত্তরে যেন মনমরা হয়ে পড়লেন আরমান কোহলির বান্ধবী নিরু রনধাওয়া। স্পটবয়-কে দেওয়া এক সাক্ষাতকারে নিরু বলেন, আরমানের সঙ্গে প্রায় ৩ বছর লিভ ইন করেছেন। তাই আরমানের বাবা রাজকুমার কোহলিকে যখন পুলিসের গাড়িতে বসে থাকতে দেখেন, তখন খারাপ লাগা শুরু হয়।

নিরু আরও বলেন, রাজকুমার কোহলিকে বাবা বলে ডাকতেন তিনি। গত ৩ বছর ধরে তাঁর সঙ্গে বাবা-মেয়ের মত সম্পর্ক। কিন্তু, পুলিস যেভাবে আরমানের জন্য রাজকুমার কোহলিকে জিজ্ঞাসাবাদ করছে, সেটা তাঁর খারাপ লেগেছে। আরমান যদি পুলিসের সামনে স্বীকার করে নেয় তাঁর মারধরের কথা এবং, ভবিষ্যতে আর কখনও তাঁকে শারীরিকভাবে নিগ্রহ না করার কথা দেয়, তাহলে মামলা তুলে নেওয়ার চিন্তাভাবনা করবেন তিনি। সংবাদমাধ্যমের সামনে এভাবেই নিজের মত প্রকাশ করেন নিরু রনধাওয়া।

তবে আরমানের সঙ্গে নতুন করে আর সম্পর্ক গড়ে তুলতে চান কি না, ওই প্রশ্নের উত্তরে বেশ অন্যরকমই উত্তর দিয়েছেন নিরু। তিনি বলেন, তাঁর গরহাজিরায় বাড়িতে একাধিক মহিলা আসতেন। অনেকেই তাঁকে সেই কথা জানিয়েছিলেন। কিন্তু, বিশ্বাস করেননি তিনি। পাশপাশি কার সঙ্গে তাঁর শারীরিক সম্পর্ক ছিল কি না, সে বিষয়েও সঠিকভাবে কিছু জানেন না। তাই আরমানের সঙ্গে নতুন করে সম্পর্ক আর গড়তে চান না বলেই ইঙ্গিত দিয়েছেন নিরু।

সম্প্রতি আহত অবস্থায় মুম্বইয়ের কোকিলাবেন হাসপাতালে ভর্তি হন নিরু রনধাওয়া নামে এক ফ্যাশন স্টাইলিস্ট। জানা যায়, আরমান কোহলির বান্ধবী তিনি। গত ৩ বছর ধরে আরমানের সঙ্গে থাকছিলেন। এবার তাঁর হাতে মার খেয়ে, নাক ফাটিয়েই হাসপাতালে ভর্তি হয়েছেন আরমান কোহলি। জিনিউজ