শীতে কাঁপছে পঞ্চগড় তাপমাত্রা ৫.৭

এবারের শীত মৌসুমে দেশের সর্বনিম্ন তাপমাত্রা রেকর্ড করা হয়েছে পঞ্চগড়ের তেঁতুলিয়ায়। বৃহস্পতিবার (২৬ ডিসেম্বর) সকাল ৬টায় জেলায় সর্বনিম্ন তাপমাত্রা রেকর্ড করা হয়েছে ৬ দশমিক ৩ ডিগ্রি সেলসিয়াস। এছাড়া সকাল ৯ টায় রেকর্ড হওয়া ৫ দশমিক ৭ ডিগ্রি সেলসিয়াস আজ সারা দেশের ও চলতি শীত মৌসুমের সর্বনিম্ন তাপমাত্রা।

এদিকে, তাপমাত্রা নেমে আসায় এবং শীতের তীব্রতা বৃদ্ধি পাওয়ায় বিপাকে পড়েছে সাধারণ ও খেটে খাওয়া মানুষেরা। ঘন কুয়াশা আর মৃদু শৈত্য প্রবাহের দাপটে পৌষ মাসের শীতে সর্বনাশের মুখে দেশের উত্তরের সীমান্তবর্তী জেলা পঞ্চগড়ের হিমালয়ের কন্যা তেঁতুলিয়া।

বৃহস্পতিবার (২৬ ডিসেম্বর) সকাল ৯টায় জেলার বিভিন্ন এলাকায় ঘুরে দেখা গেছে, শীতের দাপট থেকে রক্ষা ও শীত নিবারণের জন্য নিম্ন আয়ের মানুষরা খড়কুটা জ্বালিয়ে আগুন পোহাচ্ছে। তাছাড়া ঘন কুয়াশা ও শৈত্য প্রবাহের কারণে ঘর থেকে বের হচ্ছে না অনেকেই। আর যারা এই পৌষের শীতকে উপেক্ষা করে জীবিকার তাগিদে বেড়িয়ে পড়েছেন তারাও কাজ করতে হিমসিম খাচ্ছেন। ফলে অনেকেই কাজ শেষ না করেই আগেই বাড়ির দিকে পথ ধরছেন।

এ বছর জেলায় বসবাস করা প্রায় ২ লাখ শীতার্ত মানুষের সংখ্যা থাকলেও তাদের জন্য বরাদ্দ হয়েছে মাত্র ৩০ হাজার শীতবস্ত্র। যা জেলা প্রশাসন জেলার ৫টি উপজেলার ৪৩টি ইউনিয়নে প্রশাসন ও জনপ্রতিনিধিদের মাধ্যমে বিতরণ করেছে। তবে তা প্রয়োজনের তুলনায় অনেক কম বলে জানা গেছে।

এবিষয়ে জেলা প্রশাসক সাবিনা ইয়াসমিন জানান, ‘গরীব ও শীতার্তদের মধ্যে সরকারী ও বেসরকারি বিভিন্ন প্রতিষ্ঠানের মাধ্যমে শীতবস্ত্র বিতরণ করা হয়েছে।

এদিকে তেঁতুলিয়া আবহাওয়া পর্যবেক্ষণ কেন্দ্রের ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা রহিদুল ইসলাম বার্তা বাজারকে জানান, ‘আজ সকাল ৬টায় পঞ্চগড়ের তেঁতুলিয়ায় সর্বনিম্ন তাপমাত্রা রেকর্ড করা হয়েছে ৬ দশমিক ৩ ডিগ্রি সেলসিয়াস ও সকাল ৯ টায় ৫.৭ ডিগ্রি সেলসিয়াস যা সারা দেশের মধ্য, চলতি বছরের শীতে মৌসুমের মধ্যে সর্বনিম্ন।’

বার্তাবাজার/এমকে

বার্তা বাজার .কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।
এই বিভাগের আরো খবর